পরিবারকে চিরকুটে ধর্ষণের খবর দেয় মাদ্রাসা ছাত্রী

পরিবারকে চিরকুটে ধর্ষণের খবর দেয় মাদ্রাসা ছাত্রী
  © সংগৃহীত

সাভারের আশুলিয়ায় ১২ বছরের এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে মাদ্রাসার অধ্যক্ষ তৌহিদ বিন আজহারকে (৬০) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার (২১ জানুয়ারি) রাতে রাজধানীর মিরপুর থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

এর আগে ৮ জানুয়ারি আশুলিয়ার খেজুরবাগান চাঁনগাও এলাকার হুরে জান্নাত মহিলা মাদ্রাসা ও নুরে মদিনা মাদ্রাসার আবাসিক ভবনের নিচতলায় এ ধর্ষণের ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় বুধবার (২০ জানুয়ারি) বিকেলে ভুক্তভোগীর বাবা আশুলিয়া থানায় মামলা দায়ের করলে অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে পুলিশ। ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের ওয়ানস্টপ ক্রাইসিস সেন্টার (ওসিসি) থেকে ভুক্তভোগী শিশুর স্বাস্থ্য পরীক্ষা করানো হয়েছে।

পুলিশ জানায়, ভুক্তভোগী ওই এলাকার হুরে জান্নাত মহিলা মাদ্রাসার ছাত্রী হওয়ায় আবাসিক ছাত্রীনিবাসে থাকতো। গত ৮ জানুয়ারি অধ্যক্ষের স্ত্রী বেড়াতে গেলে ওই শিশুকে চা বানানোর কথা বলে ডেকে নিয়ে নিজ বাসায় ধর্ষণ করে মাদ্রাসারর অধ্যক্ষ।

পরে বিষয়টি কাউকে জানালে পরিস্থিতি ভয়াবহ হবে বলে ছাত্রীকে ভয়-ভীতি দেখান অধ্যক্ষ। আবাসিক ছাত্রীনিবাস থেকে বের হতে না পেরে একটি চিরকুট লিখে সহপাঠীর মাধ্যমে পরিবারকে পাঠালে বিষয়টি জানাজানি হয়। এরপর থেকে অভিযুক্ত পলাতক ছিলেন।

আশুলিয়ার থানা পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) আল মামুন কবির বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে মিরপুরের কাফরুল থেকে অধ্যক্ষ তৌহিদ বিন আজহারকে গ্রেফতার করা হয়।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ