অনলাইন ক্লাস গ্রহণে সেরা রাজবাড়ীর ভান্ডারিয়া মাদরাসা

ভান্ডারিয়া সিদ্দিকিয়া কামিল মাদরাসা
ভান্ডারিয়া সিদ্দিকিয়া কামিল মাদরাসা  © সংগৃহীত

দেশে মহামারি করোনা ভাইরাস পরিস্থিতির মধ্যে এর আগে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হয়। তবে এতে শিক্ষার্থীদের শিক্ষা কার্যক্রম সচল রাখতে বিকল্প হিসেবে অনলাইনে ক্লাসের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এই কার্যক্রমে সরকারি ব্যবস্থাপনায় সংসদ টিভি পাঠদান কার্যক্রম সম্প্রচার করা হয়েছে।

এদিকে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের অ্যাকসেস টু ইনফরমেশন প্রকল্পের আওতায় জেলাগুলোর অনলাইন ক্লাস কাউন্ট করে নিয়মিত আপলোড করা হচ্ছে। তাদের এবং শিক্ষক বাতায়নের তথ্য অনুযায়ী, রাজবাড়ী জেলা দেশের মধ্যে প্রথম অবস্থানে রয়েছে।

করোনা ভাইরাস এই পরিস্থিতির মধ্যেও প্রতিদিন অনলাইনে শিক্ষাদান কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন শিক্ষকরা। এতে প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকলেও শিক্ষার্থীরা শিক্ষা কার্যক্রম চালিয়ে যেতে সক্ষম হচ্ছে।

এ জেলার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বেশি অনলাইন ক্লাস গ্রহণ করেছে ভান্ডারিয়া সিদ্দিকিয়া কামিল মাদরাসা। এ মাদরাসার শিক্ষক বাতায়নে আপলোড ক্লাসের সংখ্যা গত ২৪ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ৬৯৩ এবং দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে রাজবাড়ী ইয়াসিন উচ্চ বিদ্যালয়। তাদের ক্লাসের সংখ্যা ৬৬০ টি।

মাদরাসার অধ্যক্ষ আবুল এরশাদ মোহাম্মদ সিরাজুম মুনির জানান, করোনা পরিস্থিতির কারণে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ হওয়ার পরপরই আমরা অনলাইনে ক্লাস করার চিন্তা করি। এ লক্ষ্যে মার্চে পরীক্ষামূলক ২/৩টি ক্লাস করানো হয়। পরবর্তীতে জুনে পুরাদমে অনলাইনে ক্লাস শুরু হয়। আশা করছি অতি দ্রুত অনলাইন পরীক্ষা গ্রহণ করতে সক্ষম হবো, ইনশাআল্লাহ।

জেলা শিক্ষা অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) শামসুন্নাহার চৌধুরী বলেন, অনলাইন ক্লাসের ক্ষেত্রে রাজবাড়ী জেলা দেশের মধ্যে প্রথম স্থানে রয়েছে, এটা আমাদের জন্য গর্বের। এ পর্যন্ত জেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কর্তৃক প্রায় ৫ হাজারের অধিক ক্লাস নেয়া হয়েছে।

তিনি আরো বলেন, এই সাফল্যে রাজবাড়ীর জেলা প্রশাসক দিলসাদ বেগম এবং অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মুশফিকুর রহমান-এই দু’জনের অবদান সবচেয়ে বেশি। তাদের আন্তরিক সহায়তার জন্য আজ আমরা দেশসেরা হতে পেরেছি।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ