কল্যাণ ট্রাস্টের নামে প্রতারণা

কল্যাণ ট্রাস্টের নামে প্রতারণা
  © প্রতীকী ছবি

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন ‘বেসরকারি শিক্ষক-কর্মচারী কল্যাণ ট্রাস্টে’র নামে ভাঙিয়ে অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষকদের সঙ্গে প্রতারণার অভিযোগ উঠেছে। কল্যাণ ট্রাস্টের কর্মকর্তাদের ভুয়া নাম-পরিচয় ব্যবহার করে শিক্ষকদের সঙ্গে প্রতারণা আশ্রয় নিচ্ছে একদল প্রতারক। এ বিষয়ে কল্যাণ ট্রাস্টের পক্ষ থেকে এর আগে রাজধানীর লালবাগ থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করা হয়েছিল।

কল্যাণ ট্রাস্টের উপপরিচালক আবুল বাসারের পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই প্রতারকদের ধরিয়ে দেওয়ার জন্য শিক্ষক-কর্মচারীদের প্রতি আহ্বান জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, করোনার মহাদুর্যোগের সময়ও তারা সাধারণ শিক্ষকদের সঙ্গে প্রতারণা করছে। শিক্ষক ও কর্মচারী কল্যাণ ট্রাস্ট থেকে অতিরিক্ত কল্যাণ সুবিধা পাইয়ে দেওয়ার প্রলোভন দেখিয়ে বিভিন্ন মোবাইল নম্বর থেকে আনোয়ারুল কবির (উপসচিব), পরিমল বাবু, বিকাশ দাস, সিরাজ চৌধুরী (কল্যাণ ট্রাস্টের কর্মকর্তা, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের উপসচিব) ইত্যাদি পরিচয় দিয়ে ফোন দিচ্ছে। বিভিন্ন সময় এমপিওভুক্ত অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক-কর্মচারীদের সঙ্গে প্রতারক চক্র যোগাযোগ করছে বলে টেলিফোন ও মৌখিকভাবে অভিযোগ পাওয়া গেছে। অথচ এ নামে কল্যাণ ট্রাস্টে কোনো কর্মকর্তা নেই।

এতে আরো বলা হয়, সিরাজ চৌধুরী নামে এক প্রতারক এক শিক্ষকের কাছে ছয় হাজার টাকা চেয়ে ফোন করেছে। অথচ তিনি আগেই তার সব পাওনা বুঝে পেয়েছেন।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ