হলে পানির সমস্যা সমাধানে সড়কে কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীরা

পরিষ্কার পানির দাবিতে সড়কে অবস্থান বাকৃবি ছাত্রীদের
পরিষ্কার পানির দাবিতে সড়কে অবস্থান বাকৃবি ছাত্রীদের  © টিডিসি ফটো

পানির সংকট নিরসন ও পরিষ্কার পানির দাবিতে সড়ক অবরোধ করেছেন বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) সুলতানা রাজিয়া হলের ছাত্রীরা। মঙ্গলবার (৭ মার্চ) রাত সাড়ে ৮টার দিকে হলের প্রধান ফটকের সামনের রাস্তা অবরোধ করেন ওই হলের প্রায় অর্ধশতাধিক ছাত্রী। এ সময় তাঁরা বালতি ও বিভিন্ন অভিযোগ লেখা প্ল্যাকার্ড নিয়ে সড়কে অবস্থান নেন।

বেশিরভাগ সময় হলের পাইপলাইন দিয়ে ময়লা পানি আসা, সবসময় পানি সরবরাহ না থাকা, হলের বাথরুম ও বেসিন নিয়মিত সঠিকভাবে পরিষ্কার না করা, দীর্ঘদিন পানির ট্যাংক পরিষ্কার না করা, হলের ভাঙ্গা ড্রেনগুলো মেরারত না করায় দুর্গন্ধ ও মশার উপদ্রব, হলকর্মীদের অসহযোগিতাপূর্ণ আচরণ, সিট বণ্টনে হল কর্তৃপক্ষের গাফিলতিসহ বেশ কিছু অভিযোগ তুলেছেন সুলতানা রাজিয়া হলের ছাত্রীরা।

ছাত্রীরা জানান, দীর্ঘদিন ধরেই পানির সমস্যার সম্মুখীন হয়ে আসছেন তাঁরা। বিশেষ করে গত এক সপ্তাহ ধরে এ সমস্যা চরম আকার ধারণ করেছে। সমস্যার সমাধানে দফায় দফায় হল প্রভোস্টের সঙ্গে যোগাযোগ করেও কোনো সুরাহা মেলেনি। এছাড়া হল প্রভোস্টকে হলের অফিসে তেমন পাওয়া যায় না বলেও অভিযোগ ছাত্রীদের।

আরও পড়ুন: কেনাকাটা করতে গিয়ে প্রাণ গেল বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রের

এ বিষয়ে হল প্রভোস্ট অধ্যাপক ড. ফৌজিয়া সুলতানা বলেন, পানির সমস্যাটি বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় সাপ্লাই লাইন থেকেই। হলের পানির লাইন বা সাপ্লাইয়ের কোনও সমস্যা নেই। ছাত্রীদের সকল অভিযোগ দ্রুতই সমাধান করা হবে। পানির ট্যাংকগুলো পরিষ্কার করারও ব্যবস্থা করা হবে।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের পানি সরবরাহ, গ্যাস,পয়ঃপ্রণালী ও স্যানিটেশন বিভাগের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী মো. মনিরুজ্জামান বলেন, প্রেশার কম থাকায় সুলতানা রাজিয়া হলের ঘ-ব্লকে পানি আসতে সমস্যা হতো। তবে এখন সবগুলো ট্যাংকেই পানি এসেছে। কিন্তু ট্যাংকগুলো অপরিষ্কার হওয়ার কারণে নোংরা পানি যাচ্ছে। 

এছাড়াও পরিচ্ছন্নতা কর্মীর অভাবে নিয়মিত পানির ট্যাংক পরিষ্কার করা হয় না বলে জানিয়ে তিনি বলেন, যেকোনো সমস্যা আমাদের  অবগত করলে আমরা যতদ্রুত সম্ভব সেটা সমাধানের চেষ্টা করি। তবে পানির ট্যাংক পরিষ্কারের বিষয়ে হল প্রশাসন আমাদের কিছু জানায়নি।