মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষা কবে জানা যাবে সোমবার

মেডিকেল
মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষার্থী  © ফাইল ছবি

২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষের মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষা কবে আয়োজন করা হবে সে বিষয়ে আলোচনা করতে বৈঠকে বসতে যাচ্ছে স্বাস্থ্য শিক্ষা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগ। আগামী সোমবার (১৭ জানুয়ারি) এই সভা অনুষ্ঠিত হবে।

জানা গেছে, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে সকাল সাড়ে ১০টায় এই বৈঠক শুরু হবে। বৈঠকে স্বাস্থ্য শিক্ষা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগের নতুন সচিব মো. সাইফুল হাসান বাদল সভাপতিত্ব করবেন।

এদিকে বৈঠকের বিষয়টি জানিয়ে স্বাস্থ্য শিক্ষা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগের চিকিৎসা শিক্ষা-১ শাখা তেকে একটি নোটিশ জারি করা হয়েছে। এতে স্বাক্ষর করেছেন উপসচিব মোহাম্মদ আবদুল কাদের।

আরও পড়ুন: সংক্ষিপ্ত সিলেবাস ও ভর্তি পরীক্ষার সময় নির্ধারণে বৈঠক সোমবার

সভার নোটিশে বলা হয়েছে, ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষে এমবিবিএস ও বিডিএস ভর্তি পরীক্ষার বিষয়ে একটি প্রস্তুতিমূলক সভা আগামী ১৭ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হবে। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে (কক্ষ নম্বর ৩৩২) অনুষ্ঠিত হবে। সকাল সাগে ১০টায় এই সভা শুরু হবে।

এদিকে স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদপ্তরের একটি নির্ভরযোগ্য সূত্র জানিয়েছে, ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা সংক্ষিপ্ত নাকি পুরো সিলেবাসে হবে সে বিষয়ে সিদ্ধান্তহীনতায় ভুগছে কর্তৃপক্ষ। একপক্ষ মনে করছে পুরো সিলেবাসের আলোকেই ভর্তি পরীক্ষা নেয়া উচিত। আরেক পক্ষের মতে, যেহেতু এইচএসসি পরীক্ষা সংক্ষিপ্ত সিলেবাসের আলোকে হচ্ছে সেহেতু ভর্তি পরীক্ষাও এই সিলেবাসের আলোকে নেয়া দরকার।

সংক্ষিপ্ত সিলেবাসের বিপক্ষে মত দেয়া কর্মকর্তাদের মতে, মেডিকেল অত্যন্ত সেনসিটিভ একটি জায়গা। এখানে একজন শিক্ষার্থীর প্রকৃত মেধা যাচাই করেই ভর্তি করানো দরকার। সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে ভর্তি পরীক্ষা নেয়া হলে সঠিকভাবে মেধা যাচাই করা সম্ভব হবে না। মেধা যাচাই করতে হলে পুরো সিলেবাসের আলোকেই পরীক্ষা আয়োজন করতে হবে।

আরও পড়ুন: ‘গায়েবি’ মামলায় ঢাবি অধ্যাপক তাজমেরী কারাগারে

অন্যদিকে সংক্ষিপ্ত সিলেবাসের পক্ষে ভর্তি পরীক্ষা আয়োজনে মত দেয়া কর্মকর্তারা বলছেন, বিজ্ঞানের শিক্ষার্থীদের পদার্থ, রসায়ন এবং গণিত অথবা জীববিজ্ঞান বিষয়ে এইচএসসি পরীক্ষা হয়েছে। এই বিষয়গুলোর মধ্যে কেবলমাত্র গণিত ছাড়া বাকি তিনটি বিষয় থেকেই মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষার প্রশ্ন হয়। এর সাথে সাধারণ জ্ঞান এবং ইংরেজি বিষয় যুক্ত করা হয়। সুতরাং সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে ভর্তি পরীক্ষা আয়োজন করা হলেও তেমন একটা অসুবিধা হবে না।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদপ্তরের পরিচালক (চিকিৎসা শিক্ষা ও জনশক্তি উন্নয়ন) অধ্যাপক ডা. এ কে এম আহসান হাবীব দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাসকে বলেন, বিষয়টি নিয়ে এখনো কোনো আলোচনা হয়নি। কোনো সিদ্ধান্ত হলে তখন সেটি জানিয়ে দেয়া হবে।


মন্তব্য

x