থাইল্যান্ডে সরকারবিরোধী বিক্ষোভে যোগ দিয়েছেন স্কুলের শিক্ষার্থীরাও

থাইল্যান্ডে সরকারবিরোধী বিক্ষোভে  স্কুলের শিক্ষার্থীরা
থাইল্যান্ডে সরকারবিরোধী বিক্ষোভে স্কুলের শিক্ষার্থীরা  © ফাইল ফটো

থাইল্যান্ডে সরকার পতন ও রাজতন্ত্রের ক্ষমতা খর্বের দাবিতে চলা কয়েক মাসের আন্দোলনের প্রতি সংহতি জানানোর পাশাপাশি শিক্ষা ব্যবস্থার সংস্কারের দাবিতে বিক্ষোভ করেছে।

শনিবার(২১ নভেম্বর) অনুষ্ঠিত বিক্ষোভে ব্যাংককের রাস্তায় স্কুল শিক্ষার্থীদের বেশ উপস্থিতি লক্ষ্য করা যাচ্ছে বলে আন্তর্জাতিক সংবাদ সংস্থাগুলো জানিয়েছে।

জানা গেছে, গত কয়েক মাস ধরে দেশটির প্রধানমন্ত্রী প্রায়ুথ চ্যান ওচার সরকারের পদত্যাগ দাবিতে বিক্ষোভ করে আসছে দেশটির ছাত্রজনতা। মাঝে করোনা পরিস্থিতির কারণে সেই বিক্ষোভ কিছুটা স্থিমিত হলেও এখন বিক্ষোভ নতুন মোড় নিয়েছে।

গত দিনগুলোয় পুলিশের সঙ্গে কয়েক দফা সংঘর্ষে বিক্ষোভ আরও চাঙা হয়েছে বলেই মনে হচ্ছে। আজ ব্যাংককের রাস্তায় মাধ্যমিক স্কুলের শিক্ষার্থীদের উপস্থিতিতে আন্দোলন নতুন মাত্রা পেয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে।

বিক্ষোভে অংশ নেওয়া এক কিশোর বলেন, আমরা এখানে আমাদের কাছ থেকে ছিনিয়ে নেওয়া অধিকার ফিরিয়ে নিতে এসেছি। সেই সঙ্গে আমাদের শিক্ষা সংস্কারের বিষয়ে সরকারকে জিজ্ঞাসা করতে এসেছি।

এই শিক্ষার্থী বিরাজমান রাজতন্ত্রের প্রতি অনাস্থা জানিয়ে আরও বলেন, আমরা একটি সত্যিকারের সাংবিধানিক সাম্রাজ্য চাই। তবে বিক্ষোভে অংশ নেওয়া অনেক নারী শিক্ষার্থীর বক্তব্য থেকে জানা গেছে, তারা স্কুলের নানা অনিয়ম নিয়েও বেশ ক্ষুব্ধ। মূলত, এসব ক্ষোভও এ বিক্ষোভে এসে যুক্ত হয়েছে। একজন নারী শিক্ষার্থীর অভিযোগ, আমার শিক্ষক আমাকে যৌন হয়রানি করেছে কিন্তু আমি এর কোনো প্রতিকার পাইনি।

তিনি মনে করেন, এ সরকারের অগণতান্ত্রিক নীতি এসবের প্রতিকার করতে পারছে না।

দেশটির গত কয়েক মাস ধরে চলা বিক্ষোভের দাবি ছিল, সাবেক সেনা শাসক ও বর্তমান প্রধানমন্ত্রী প্রায়ুথ চ্যান ওচা সরকারের পদত্যাগ, চ্যান ওচা সরকারের প্রণীত সংবিধান বাতিল ও দেশটির সাংবিধানিক রাজতন্ত্রের সংস্কার।

 


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ