১ মার্চের পর নিজ দায়িত্বে হলে উঠবেন রাবি শিক্ষার্থীরা

কেন্দ্রীয় লাইব্রেরীর সামনে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলছেন রাবি প্রক্টর
কেন্দ্রীয় লাইব্রেরীর সামনে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলছেন রাবি প্রক্টর  © টিডিসি ফটো

আগামী ১লা মার্চের মধ্যে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) হল খুলে দেয়ার আল্টিমেটাম দিয়ে আন্দোলন স্থগিত করেছেন শিক্ষার্থীরা। তারা বলছেন, মঙ্গলবার এ বিষয়ে ইউজিসির বৈঠক আছে। বৈঠকে হল খুলে দেয়ার সিদ্ধান্ত না হলে ১ মার্চ শিক্ষার্থীরা নিজ দায়িত্বে হলে উঠবেন।

আজ সোমবার বেলা সাড়ে ১১ টায় রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় লাইব্রেরীর সামনে শিক্ষার্থীরা জড়ো হন। সেখানে এসে উপস্থিত হন প্রক্টর অধ্যাপক লুৎফর রহমান। এসময় তিনি শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলেন।

আন্দোলনকারীরা জানান, আমাদের সহপাঠীরা অনেক দিন ধরে ক্যাম্পাসের বাইরে থাকছে। কিছু পরীক্ষাও এরমধ্যে নেয়া হচ্ছে, কিন্তু এখন মেস গুলোতেও সিট পাওয়া যাচ্ছে না। একজনের সিটে ভাগাভাগি করে দুজন করে থাকছে। হলসহ ক্যাম্পাস খুলে দেয়ার বিষয়টি যেহেতু সরকারের নির্দেশনার উপর নির্ভর করছে সেহেতু তারা সরকারের কাছে জোর দাবি জানাচ্ছে যেনো অতিদ্রুত হলসহ ক্যাম্পাস যেন খুলে দেয়া হয়।

বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের শিক্ষার্থী খায়রুল ইসলাম দুখু বলেন, আগামী ২৩ তারিখে ইউজিসির মিটিং রয়েছে। আমরা সেই সিদ্ধান্ত দেখব, তারপরের দিনই রাবি প্রশাসনের মিটিং রয়েছে তাও আমরা দেখব। তাতে হল খোলার কোন সিদ্ধান্ত না এলে আগামী ০১ মার্চ থেকে সরাসরি হলে প্রবেশ করবো আমরা।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক এম লুৎফর রহমান বলেন, আগামীকাল (২৩ ফেব্রুয়ারি) বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনে উপাচার্যদের বৈঠক আছে। সেখানে জোরালোভাবে শিক্ষার্থীদের দাবির বিষয়টি উপস্থাপন করা হবে। এখন পর্যন্ত সরকারের দায়িত্বশীলদের সাথে বিষয়টি নিয়ে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ করছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ