স্কুলছাত্রীদের বিষপ্রয়োগ: ইরানে বেশ কয়েকজন গ্রেপ্তার

স্কুলছাত্রীদের বিষপ্রয়োগ: ইরানে বেশ কয়েকজন গ্রেপ্তার
স্কুলছাত্রীদের বিষপ্রয়োগ: ইরানে বেশ কয়েকজন গ্রেপ্তার  © ফাইল ফটো

গত কয়েক মাস ধরে স্কুলে পড়ুয়া মেয়েদের বিষপ্রয়োগের ঘটনায় এই প্রথম বেশ কয়েকজন গ্রেপ্তার করা হয়েছে ইরানে। মঙ্গলবার (৭ মার্চ) ইরানের উপ-স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মজিদ মীরাহমাদি রাষ্ট্রীয় টিভিতে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

মজিদ মীরাহমাদি বলেছেন, গোয়েন্দা তথ্য এবং গোয়েন্দা সংস্থাগুলোর অনুসন্ধানের ভিত্তিতে পাঁচটি প্রদেশে বেশ কয়েকজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। সংশ্লিষ্ট সংস্থাগুলো পূর্ণ তদন্ত চালানোর কথা জানালেও তিনি গ্রেপ্তার হওয়াদের বিষয়ে বিস্তারিত কিছু বলেননি। তবে, দেশটির রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম বলেছে, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় কিছু সন্দেহজনক নমুনা পেয়েছে এবং সেগুলো পরীক্ষার জন্য পাঠিয়েছে।

গতবছর নভেম্বর থেকে দেশটির রাজধানী তেহরানের দক্ষিণাঞ্চলীয় কওম নগরীতেই স্কুলে পড়ুয়া শত শত মেয়ে বিষপ্রয়োগের শিকার হয়েছে। কাউকে কাউকে হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে হয়েছে। উদ্বিগ্ন অভিভাবকরা একের পর এক সন্দেহজনক বিষপ্রয়োগ এবং স্কুলছাত্রীরা অসুস্থ হয়ে পড়ার ঘটনায় রাজধানী তেহরান ও অন্যান্য শহরে বিক্ষোভ দেখিয়েছে।

গত শনিবারও ইরানের ৩১টি প্রদেশের ১০টি প্রদেশের ৩০টির বেশি স্কুলে শিক্ষার্থীদের অসুস্থ হয়ে পড়ার খবর মেলে। এ নিয়ে সংবাদ মাধ্যম ‘দ্য গার্ডিয়ান’ জানিয়েছে, মঙ্গলবার আরও মেয়েকে তাদের স্কুল থেকে অ্যাম্বুলেন্সে করে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে।

এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে রাজধানী তেহরানে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের বাইরে বিক্ষোভও চলছে। স্কুলছাত্রীদের সুরক্ষায় চিকিৎসা সংগঠনগুলো কর্তৃপক্ষকে আরও বেশি কিছু করার আহ্বান জানিয়েছে।
বিষপ্রয়োগের এ ঘটনায় ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ আলি খামেনি সোমবারেই প্রথম প্রকাশ্যে কথা বলেছেন। এ ঘটনায় জড়িতদের কঠোর শাস্তি পেতে হবে বলেও জানান খামেনি।

পার্লামেন্টের ফ্যাক্ট-ফাইন্ডিং কমিটির সদস্য মোহাম্মদ-হাসান আসাফারি সোমবার আইএসএনএ বার্তা সংস্থাকে বলেছেন, কোন ধরনের বিষ প্রয়োগ হয়েছে এবং এর পেছনের কারণ খুঁজে বের করতে নানারকম পরীক্ষা করা হচ্ছে। এখন পর্যন্ত ব্যবহৃত বিষের ধরন সম্পর্কে সুনির্দিষ্ট কোনও তথ্য পাওয়া যায়নি।