করোনার অধিকতর বিস্তার রোধ করব: প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা  © ফাইল ফটো

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বাংলাদেশ আসন্ন দিনগুলোতে কোভিড-১৯-এর অধিকতর বিস্তার রোধ করতে সক্ষম হবে। তিনি বলেন, ‘এখন পর্যন্ত আমরা ভাগ্যবান যে বাংলাদেশে এ রোগের সংক্রমণ এবং মৃত্যুর হার উভয়ই খুব কম। আমরা আশাবাদী যে আগামী দিনে এ রোগের আরো বিস্তার রোধ করতে আমরা সক্ষম হব।’

আজ শনিবার ক্রিটিক্যাল কেয়ার-২০২০ সম্পর্কিত প্রথম আন্তর্জাতিক ই-কনফারেন্সে পূর্বে ধারণ করা ভিডিও বার্তায় এসব কথা বলেন তিনি।

শেখ হাসিনা বলেন, ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টা এবং চিকিৎসক ও অন্য স্বাস্থ্য কর্মীদের কঠোর পরিশ্রম বাংলাদেশে মারাত্মক এ ভাইরাসের বিস্তার রোধ করতে পারে।

কোভিড-১৯ থেকে সৃষ্ট জরুরি অবস্থার মুখোমুখি হতে সরকার জরুরি ভিত্তিতে দুই হাজার চিকিৎসক এবং পাঁচ হাজার নার্স নিয়োগ দিয়েছে বলে জানান তিনি। প্রধানমন্ত্রী বলেন, এ সম্মেলন এমন এক সময়ে অনুষ্ঠিত হচ্ছে যখন পুরো বিশ্ব কোভিড-১৯ মহামারিতে আক্রান্ত।

অ্যানেস্থেসিওলজিস্টরা অপারেশন থিয়েটারে তাদের কাজের পাশাপাশি গুরুতর অসুস্থ রোগীদের সেবায়ও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন বলে উল্লেখ করেন তিনি।

‘আইসিইউ এবং এর বাইরে থাকা কোভিড-১৯ রোগীদের সেবার জন্য মহামারির এ সময়ে আমাদের অ্যানেস্থেসিওলজিস্টরা দুর্দান্ত কাজ করে চলেছেন। বাংলাদেশ অ্যানেস্থেসিওলজিস্ট সোসাইটি কোভিড আইসিইউ ম্যানেজমেন্টের জন্য জাতীয় নির্দেশিকা প্রস্তুত করতে সরকারকে সহায়তা করেছিল,’ বলেন প্রধানমন্ত্রী।

তিনি বলেন, তারা সারা দেশে নতুন আইসিইউ সুবিধার ব্যবস্থা করেছেন এবং কোভিড-১৯ রোগীদের ব্যবস্থাপনার জন্য আইসিইউ চিকিৎসক এবং কর্মীদের প্রশিক্ষণ প্রদান করেছেন। শেখ হাসিনা বলেন, দায়িত্ব পালনের সময় অ্যানেস্থেসিওলজিস্টসহ অনেক স্বাস্থ্য কর্মী কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন।

সরকার দেশের স্বাস্থ্যসেবার উন্নয়নে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়েছে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা বিশ্বাস করি স্বাস্থ্যসেবা পাওয়া যেকোনো নাগরিকের মৌলিক অধিকার। এ জন্য আমরা অতিরিক্ত শয্যা যুক্ত এবং চিকিৎসক ও অন্যান্য স্বাস্থ্য কর্মী নিয়োগ করার মাধ্যমে সরকারি হাসপাতালগুলোতে চিকিৎসা সুবিধা আরো বৃদ্ধি করেছি।’


মন্তব্য