ক্ষমা চেয়েও রক্ষা নেই, নোবেলের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে পুলিশ

সঙ্গীত শিল্পী মাঈনুল আহসান নোবেল
সঙ্গীত শিল্পী মাঈনুল আহসান নোবেল  © ফাইল ছবি

একের পর এক বিতর্ক জন্ম দেওয়ায় তরুণ সঙ্গীত শিল্পী মাঈনুল আহসান নোবেলের বিরুদ্ধে স্থায়ী ব্যবস্থা নিচ্ছে পুলিশের সাইবার অপরাধ তদন্ত বিভাগ। সাইবার বুলিং ও শিল্পী-সাংবাদিকসহ অন্যদের হেনস্থা করায় এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। ঢাকা মহানগর পুলিশের সাইবার অপরাধ তদন্ত বিভাগের অতিরিক্ত উপপুলিশ কমিশনার নাজমুল ইসলাম জানান, শিগগিরই এর সমাধান হবে।

আজ বুধবার (১৯ মে) নিজের ফেসবুক পেজে দেয়া এক স্ট্যাটাসে তিনি এ কথা জানান। এদিকে বারবার বিতর্কের জন্ম দেয়া নোবেল গতকাল মঙ্গলবার নিজের ভেরিফাইড ফেসবুকে সাম্প্রতিক কর্মকাণ্ডের বিষয়ে ক্ষমা চেয়ে একাধিক পোস্ট করেছেন। সেখানে তিনি সঙ্গীত শিল্পী জেমসের কাছে ক্ষমাপ্রার্থনা করেছেন।

ক্ষমা চেয়েও রক্ষা পাচ্ছেন না নোবেল। তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানিয়েন পুলিশের সাইবার অপরাধ তদন্ত বিভাগের অতিরিক্ত উপপুলিশ কমিশনার নাজমুল ইসলাম জানান, গায়ক নোবেল ও তার ভেরিফায়েড পেজের আপত্তিকর ও অনভিপ্রেত পোস্ট নিয়ে আমরা ইতোমধ্যেই অবগত। বাংলাদেশের প্রচলিত আইন মোতাবেক ও সংক্ষুব্ধ ব্যক্তি বা ব্যক্তিবর্গের সাথে মতামত, সম্মতি ও পরামর্শক্রমে এই বিষয়ের একটা বিশ্বাসযোগ্য ও স্থায়ী সমাধানের জন্য আমরা আইনের আলোকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করছি।

এদিকে, নিজের কোনো গান প্রকাশের আগে ফেসবুকে একাধিক ইস্যুতে বিতর্কিত পোস্ট দিয়ে আলোচনায় এসেছেন নোবেল। জানা গেছে, এবারও তার একটি গান আসার কথা। যার শিরোনাম ‘মেহেরবান’। এর প্রচারণার অংশ হিসেবেই হয়তো তার এমন বিতর্কিত পোস্ট। তবে নোবেলের দাবি, তার ফেসবুক পেজ হ্যাক হয়েছে।

জেমসের কাছে ক্ষমা চেয়ে নোবেল ফেসবুকে লিখেছেন, জেমস ভাই। আমার তো মায়ের পেটের বড় ভাই নাই। যদি থাকতো, আমি তাঁকে আপনার মত করেই ভালোবাসতাম, শ্রদ্ধা করতাম। জেনে না জেনে, বুঝে না বুঝে, রাগ অভিমানে, অনেক অন্যায় করে ফেলেছি। গুরু! যে ভুল আমি করেছি, সে ভুলের ক্ষমা চাওয়ার যোগ্য আমি নই। তবুও, যদি নিজের ছোট ভাই এবং আপনার সবচেয়ে বড় ভক্ত মনে করে আমাকে একটু ক্ষমার দৃষ্টিতে দেখতেন, আপনার কাছে চিরকৃতজ্ঞ থাকতাম।

এর আগে পৃথক আরেক ফেসবুক স্ট্যাটাসে নিজের সাম্প্রতিক কর্মকাণ্ডের জন্য ক্ষমা চান নোবেল। নোবেল লিখেন, রোড এক্সিডেন্ট এর পর আমাকে কেউ একবার কল করে খবর নিল না। নিজের আবেগ আসলে ধরে রাখতে পারি নাই। আমি মাত্র ২৪ বছর বয়সী একজন তরুন শিল্পী। আমিও তো দেশের জন্য সুনাম কুড়িছে এনেছি। আমি না হয় ভুল করব। সেগুলি ভুল ধরে দেওয়ার দায়িত্ব তো আপনাদের। সেখানে অনেকেই আমাকে প্রতিনিয়ত হেয় করছেন। তাই আসলে রাগ সামলাতে পারিনি। আমি সকল সাংবাদিক ভাইদের প্রতি শ্রদ্ধা রেখে কথা দিচ্ছি পরবর্তীতে এরকম ভুল আর হবে না।


মন্তব্য

এ বিভাগের আরো সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ