জ্ঞান আহরণের প্রধান মাধ্যম হচ্ছে বই: সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী

বই
প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ  © ফাইল ছবি

সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ বলেছেন, নতুন প্রজন্ম আগামী দিনের জাতির কান্ডারী ও পথপ্রদর্শক। তাদেরকে একবিংশ শতাব্দীর উপযোগী দক্ষ মানবসম্পদ হিসেবে গড়ে তুলতে জ্ঞান আহরণের কোন বিকল্প নেই। 

আজ রবিবার (২ জানুয়ারি) রাজধানীর গণগ্রন্থাগার অধিদপ্তরের শওকত ওসমান স্মৃতি মিলনায়তনে চার দিনব্যাপী ‘বঙ্গবন্ধু ও স্বাধীনতা বইমেলা’র সমাপনী অনুষ্ঠানে ধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, বইয়ের কোন বিকল্প নেই।সেই জ্ঞান আহরণের প্রধান মাধ্যম হচ্ছে বই। সেজন্য নতুন প্রজন্মকে বই পড়ায় উদ্বুদ্ধ করতে হবে। 

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর লেখাকে অত্যন্ত পরিণত ও অসাধারণ অভিহিত করে তিনি বলেন, জাতির পিতার লেখা আমাদের চুম্বকের মত আকর্ষণ করে। অসমাপ্ত আত্মজীবনী, কারাগারের রোজনামচা ও আমার দেখা নয়াচীন। তিনি যদি আরো লেখালেখি করার সুযোগ পেতেন, তবে নিঃসন্দেহে বাংলা সাহিত্যে তাঁর একটি গুরুত্বপূর্ণ অবস্থান তৈরি হতো।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির উদ্যোগে, সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সার্বিক ব্যবস্থাপনায়, স্থানীয় সরকার বিভাগের সহযোগিতায় ও ঢাকা জেলা প্রশাসন এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

ঢাকা জেলা প্রশাসক মো. শহীদুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তৃতা করেন সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. আবুল মনসুর, গণগ্রন্থাগার অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মো. আবুবকর সিদ্দিক ও ঢাকার অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (রাজস্ব) মো. হেলাল মাহমুদ শরীফ।

উল্লেখ্য, গ্রন্থাগার অধিদপ্তর প্রাঙ্গণে ঢাকা জেলা প্রশাসন আয়োজিত ‘বঙ্গবন্ধু ও স্বাধীনতা' বইমেলায় মোট ৫৪টি স্টল অংশগ্রহণ করে।


মন্তব্য

x