২০২০: শেকৃবির আলোচিত ১০ ঘটনা

২০২০: শেকৃবির আলোচিত ১০ ঘটনা
  © টিডিসি ফটো

মাত্র একদিন পরেই বিদায় নিচ্ছে ২০২০। এ বছর রাজধানীর শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (শেকৃবি) ঘটে গেছে নানান ঘটনা। সবচেয়ে আলোচিত বিষয় ছিল রেজিস্ট্রারকে ভিসির দায়িত্ব দেয়া। ২০ সেপ্টেম্বর শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের এক প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রারকে ভিসির রুটিন দায়িত্ব প্রদান করা হয়। পরবর্তীতে বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের আপত্তির মুখে শেকৃবির এক অধ্যাপককে ভিসি হিসেবে নিয়োগ দিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করে মন্ত্রণালয়। বছরজুড়ে শেকৃবির আলোচিত ১০ ঘটনা নিয়ে আজকের আয়োজন। লিখছেন শেকৃবি প্রতিনিধি মো. আরাফাত রহমান অভি—

সিজিপিএ-৪ এ ৪ পেয়ে রেকর্ড গড়েছিলেন জাকিয়া
বছরের একদম শুরুতেই শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (শেকৃবি) কৃষি অনুষদ থেকে অনার্স (বিএসসি এজি অনার্স) পরীক্ষায় সিজিপিএ-৪ এর মধ্যে ৪ পেয়ে রেকর্ড গড়েছিলেন গাইবান্ধার জাকিয়া ইসলাম। বিশ্ববিদ্যালয় থেকে দেয়া একটি প্রত্যয়নপত্রে বিষয়টি জানা যায়। তার বাড়ী গাইবান্ধা পৌরসভার পূর্ব থানাপাড়া এলাকায়। বাবা মরহুম খাদেমুল ইসলাম ও মা গুলশান আরা বেগমের তিন সন্তানের মধ্যে সর্বকনিষ্ঠ তিনি।

ছাত্রীর আত্মহত্যা
৯ নভেম্বর শেকৃবির জুলহাস সিলভিয়া নামে এক ছাত্রী আত্মহত্যা করেন। যশোরের নতুন খয়েরতলা এলাকার ভাড়া বাসায় তিনি আত্মহত্যা করেন। জানা যায়, জুলহাস সিলভিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের কৃষি অনুষদের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী এবং কৃষকরত্ন শেখ হাসিনা হলের আবাসিক ছাত্রী ছিলেন। তার বাবার নাম ইরফান আলী।

২ বছর ২ মাস পর শেকৃবি ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা
সম্মেলনের ২ বছর ২ মাস পর ৮ ফেব্রুয়ারি শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (শেকৃবি) ছাত্রলীগের কমিটি পূর্ণাঙ্গ করা হয়।  ছাত্রলীগের সভাপতি আল নাহিয়ান খান জয় এবং সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্য স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে ২২২ সদস্যবিশিষ্ট পূর্ণাঙ্গ কমিটি প্রকাশ করা হয়। ২২২ সদস্যবিশিষ্ট কমিটিতে সহ-সভাপতি পদে ৬০ জন, যুগ্ম সম্পাদক ১১ জন, সাংগঠনিক সম্পাদক ১১ জন, সহ সম্পাদক পদে ২৬ জনের নাম ঘোষণা করা হয়। এর আগে ২০১৭ সালের ২৮ নভেম্বর এস এম মাসুদুর রহমান মিঠুকে সভাপতি এবং মো. মিজানুর রহমানকে সাধারণ সম্পাদক করে ১৪ সদস্য বিশিষ্ট আংশিক কমিটি ঘোষণা করা হয়।

প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণপদক পান শেকৃবির ৩ শিক্ষার্থী
বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) প্রদত্ত ‘প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণপদক’ পেয়েছিলেন শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (শেকৃবি) ৩ শিক্ষার্থী। ২৬ ফেব্রুয়ারি সকালে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের শাপলা হলে এ পদক তুলে দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। স্বর্ণপদক প্রাপ্তরা হলেন, এনিম্যালসায়েন্স এন্ড ভেটেরিনারি মেডিসিন অনুষদের নিপু সেন (সিজিপিএ ৩.৯৬), এগ্রিবিজনেস ম্যানেজমেন্ট অনুষদের তাসকিন আফরিনা (সিজিপিএ ৩.৯১), কৃষি অনুষদের মো. ইমাম হোসেন (সিজিপিএ ৩.৯৭)।

শেকৃবির উপাচার্যসহ শীর্ষ তিন পদ শূন্য
১৫ আগস্ট থেকে অভিভাবক শূন্য হয়ে যায় শেকৃবি।  উপাচার্য অধ্যাপক ড. কামাল উদ্দিন আহাম্মদের মেয়াদ শুক্রবার শেষ হয়েছে। একইসঙ্গে উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. সেকেন্দার আলী ও কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. মো. আনোয়ারুল হক বেগের মেয়াদ শেষ হয়। ২০১৬ সালের ১৪ আগস্ট তাদের নিয়োগ দেন রাষ্ট্রপতি ও বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য। এদিকে পরবর্তী উপাচার্যসহ শীর্ষ তিন পদে কারা আসছেন, তা নিয়ে চলছে নানা জল্পনা-কল্পনা। আলোচনায় উঠে আসে বেশ কয়েকজন শিক্ষকের নাম।

ভিসির দায়িত্বে রেজিস্ট্রার, সমালোচনা
অভিভাবক শূন্য শেকৃবিতে উপাচার্যের পদ শূন্য হওয়ায় ২০ সেপ্টেম্বর রুটিন দায়িত্ব দেয়া হয়  বিশ্ববিদ্যালয়টির রেজিস্ট্রার শেখ রেজাউল করিমকে। তবে একজন প্রশাসনিক কর্মকর্তাকে গুরুত্বপূর্ণ এ দায়িত্ব দেয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরা। অবিলম্বে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের এমন সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের দাবিও জানিয়েছেন তারা। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়,  জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় সহ অনেক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির  বিজ্ঞপ্তি দিয়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের এমন সিদ্ধান্তের প্রতিবাদ জানায়।

ধর্ষণবিরোধী ভাইরাল ছবিটির পেছনের গল্পে শেকৃবি শিক্ষার্থী
সিলেট ও নোয়াখালীতে লোমহর্ষক ধর্ষণের ঘটনা ঘটলে ধর্ষণবিরোধী প্রতীকী একটি ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। ছবিতে দেখা যাচ্ছে, একটি মেয়েকে মুুখ চেপে ধরা হয়েছে, ক্ষতের চিহ্নও স্পষ্ট যেন নির্যাতনের প্রতিচ্ছবি। ছবিটি শেকৃবিতে অধ্যয়নরত কৃষি অনুষদের ৭৭ ব্যাচের শিক্ষার্থী ফারজানা মরিয়ম মীম তুলেছেন এই ভাইরাল হওয়া ছবিটি। তবে ফারজানা মীম শেখ নামেই সে ক্যাম্পাসে সমধিক পরিচিত। আর এতে মডেল হয়েছিলেন তারই ছোটবোন পাবনা মেডিকেল কলেজে অধ্যয়নরত ফারজানা জীম। চলতি বছরের ১৪ মে তারা ছবিটি তোলেন। এরপর ২৮ মে শেকৃবি ফটোগ্রাফিক সোসাইটির ফেসবুক গ্রুপে ছবিটি আপলোড করা হয়। মীম এই সংগঠনের সহকারী সাংস্কৃতিক সম্পাদক। পরে এই ছবিটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের বিভিন্ন গ্রুপে শেয়ার হয়।

বিশ্বসেরা বিজ্ঞানীর তালিকায় শেকৃবি অধ্যাপক ড. হাছানুজ্জামান
শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (শেকৃবি) কৃষিতত্ত্ব বিভাগের অধ্যাপক ড. মীর্জা হাছানুজ্জামান বিশ্বের শীর্ষ বিজ্ঞানীদের মধ্যে তালিকাভুক্ত হয়েছেন। গবেষণাপত্রের সাইটেশনের উপর ভিত্তি করে যুক্তরাষ্ট্রের স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ভিত্তিক গবেষকদের প্রকাশিত একটি রিপোর্টে এ তালিকাভুক্তি করা হয়। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বিজ্ঞানের বিভিন্ন শাখার প্রায় এক লাখ ৫৯ হাজার ৬৮৩ জন বিজ্ঞানীর তালিকা করা হয় রিপোর্টে। এতে ড. মীর্জা হাছানুজ্জামান ‘প্ল্যান্ট বায়োলজি এন্ড বোটানি’ ক্যাটাগরিতে তলিকাভুক্ত হন। বাংলাদেশ থেকে এ তালিকায় স্থান করে নেয়া ২৬ জনের মধ্যে অধ্যাপক ড. মীর্জা হাছানুজ্জামান অন্যতম। তার বিভিন্ন আন্তর্জাতিক জার্নালে তার ১৪৮টি প্রকাশনা রয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন অভিভাবক
১৭ নভেম্বর শেকৃবির নতুন উপাচার্য হিসেবে নিয়োগ পান বিশ্ববিদ্যালয়ের কোলিতত্ত্ব ও উদ্ভিদ প্রজনন বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. শহীদুর রশীদ ভূঁইয়া। পরের দিন নতুন ট্রেজারার হিসেবে নিয়োগ পান শিক্ষক সমিতির সভাপতি বিশ্ববিদ্যালয়ের উদ্যানতত্ত্ব বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. নজরুল ইসলাম।

দুর্নীতির অভিযোগে শেকৃবির খামার ব্যবস্থাপনা প্রধানকে অব্যাহতি
৭ ডিসেম্বর বিভিন্ন ধরনের অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগে শেকৃবির খামার ব্যবস্থাপনা শাখার প্রধান খন্দকার আতিকুল ইসলামকে চলতি দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের আদেশক্রমে রেজিস্ট্রার স্বাক্ষরিত এক আদেশপত্রেবলা হয় তার বিরুদ্ধে গবেষণা খামারের বিভিন্ন প্রকারের যন্ত্রাংশ ক্রয়-বিক্রয়ে অনিয়ম, অফিসের কর্মচারীকে ব্যক্তিগত কাজে ব্যবহার, শ্রমিকের বাজেটে নয়-ছয়, লকডাউনের মধ্যেই শ্রমিক খাটানো মিথ্যা ভাউচার দিয়ে টাকা আত্মসাৎ, খামারের ফসল সংরক্ষণ না করে বিক্রি করাসহ বিভিন্ন অভিযোগ রয়েছে।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ