প্রকৌশল গুচ্ছে স্বপ্ন ভাঙছে ইংরেজি মাধ্যমের অনেকেরই

প্রকৌশল গুচ্ছে স্বপ্ন ভাঙছে ইংরেজি মাধ্যমের অনেকেরই
প্রকৌশল গুচ্ছে স্বপ্ন ভাঙছে ইংরেজি মাধ্যমের অনেকেরই  © ফাইল ছবি

প্রকৌশল গুচ্ছের ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষের সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষায় আবেদনের যোগ্যতার কারণে ইংরেজি মাধ্যমের অনেক ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীরই স্বপ্ন ভাঙছে। আবেদনের যোগ্যতার ভিত্তিতে এই মাধ্যমের অনেক ভর্তিচ্ছু বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ভর্তি পরীক্ষায় আবেদন করতে পারলেও তিনটি প্রকৌশল গুচ্ছে পারছেন না।

তিনটি প্রকৌশল ‍গুচ্ছের প্রকাশিত ভর্তি বিজ্ঞপ্তিতে ইংরেজি মাধ্যমের শিক্ষার্থীদের যোগ্যতায় বলা হয়েছে, GCE ‘O’ এবং GCE ‘A’ লেভেল পাশ করে থাকলে তার ক্ষেত্রে ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য GCE ‘O’ লেভেল পরীক্ষায় গণিত, পদার্থবিজ্ঞান, রসায়ন ও ইংরেজি বিষয়ে আলাদা আলাদাভাবে ‘A’ গ্রেড পেতে হবে।

একইসঙ্গে GCE ‘A’ লেভেল পরীক্ষায় পদার্থবিজ্ঞান, রসায়ন ও গণিত বিষয়ে আলাদা আলাদাভাবে ‘A’ গ্রেড পেতে হবে। এছাড়া বায়োমেডিকেল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগে ভর্তি হতে হলে সংশ্লিষ্ট প্রার্থীকে GCE ‘A’ লেভেল পরীক্ষায় জীববিজ্ঞানে কমপক্ষে ‘B’ গ্রেড পেতে হবে।

আরও পড়ুন: বুয়েটের প্রাক-নির্বাচনী পরীক্ষার ফল প্রকাশ

প্রকৌশল গুচ্ছের ভর্তি আবেদনে ‘O’ লেভেল এবং ‘A’ লেভেল উভয় পরীক্ষায় ‘A’ গ্রেড নির্ধারণ করা হয়েছে। যেখানে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষায় ‘O’ লেভেলে ‘B’ গ্রেড এবং ‘A’ লেভেলে ‘A’ গ্রেড নির্ধারণ করা হয়েছে। এতে করে বুয়েটে আবেদন করতে পারলেও ইংরেজি মাধ্যমের অনেক ভর্তিচ্ছু তিনটি প্রকৌশল গুচ্ছে আবেদনের সুযোগ থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন।

এর আগে, গত ৩১ মে প্রকৌশল গুচ্ছের অধীনে চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ও রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়।

আরও পড়ুন: প্রকৌশল গুচ্ছের ভর্তি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ, পরীক্ষা ৬ আগস্টই হবে

এদিকে, বুয়েটে আবেদন করে ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নিতে পারলে তিনটি প্রকৌশল গুচ্ছে আবেদনের সুযোগ না পেয়েছে অনেক ভর্তিচ্ছু ও অভিভাবক ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। তারা বলছেন, দেশের শীর্ষ প্রতিষ্ঠানে আবেদনের যোগ্যতা থেকে প্রকৌশল গুচ্ছের তিনটি বিশ্ববিদ্যালয়ের আবেদনের যোগ্যতা বেশি হওয়া কোনভাবে কাম্য নয়।

জাহাঙ্গীর আলম নামে এক ভর্তিচ্ছুর অভিভাবক দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাসকে বলেন, আমার ছেলে তার ‘O’ লেভেল এবং ‘A’ লেভেল যোগ্যতায় বুয়েটে আবেদন করে ভর্তি পরীক্ষাও দিয়ে আসছে। কিন্তু প্রকৌশল গুচ্ছে আবদেনই করতে পারছে না। এটা নিয়মের নামে বৈষম্য। অন্তত আবেদনের যোগ্যতা বুয়েটের সঙ্গে সামঞ্জস্য করা উচিৎ।

ঢাকার ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের প্রিন্সিপাল ড. মো. মাহমুদুল হাছান বলেন, প্রকৌশল গুচ্ছের এই সিদ্ধান্তের ফলে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে চাওয়া ইংরেজি মাধ্যমের শিক্ষার্থীরা যথেষ্ট বাধাগ্রস্থ হবে।

এ বিষয়ে কেন্দ্রীয় ভর্তি কমিটির সভাপতি ও চুয়েট অধ্যাপক ড. কে এম আজহারুল হাসান দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাসকে বলেন, দীর্ঘ গবেষণার ভিত্তিতে তিনটি প্রকৌশল গুচ্ছের ভর্তি বিজ্ঞপ্তি তৈরি করা হয়েছে। বুয়েট তাদের আবেদনে নিজেদের মত করে আবেদনের যোগ্যতা রেখেছে। সবার নিজস্ব স্বকীয়তা রয়েছে। প্রকৌশল গুচ্ছের আবেদনের যোগ্যতা বিবেচনার সুযোগ নেই। কারো যদি কোন ধরনের অভিযোগ থাকে তাহলে আমাদের কল সেন্টারে যোগাযোগ করতে পারেন।

গত বছর ইঞ্জিনিয়ারিং গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষায় চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (চুয়েট), খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (কুয়েট) এবং রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (রুয়েট) এ তিনটি বিশ্ববিদ্যালয় সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে। এরই ধারাবাহিকতায় এবারও তিন বিশ্ববিদ্যালয়ে গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা নেওয়া হবে।


x

সর্বশেষ সংবাদ