রাবিতে ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস পালিত

রাবিতে ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস পালিত
  © টিডিসি ফটো

স্বাস্থ্যবিধি মেনে সীমিত পরিসরে ঐতিহাসিক মুজিব নগর দিবস উদযাপন করেছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়। আজ শনিবার সকালে দিবসটি উপলক্ষে বিশ্ববিদ্যালয়ের বঙ্গবন্ধু হলে শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়।

এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ও ছাত্র উপদেষ্টা (অতিরিক্ত দায়িত্বপ্রাপ্ত) অধ্যাপক লুৎফর রহমান, বঙ্গবন্ধু হলের প্রভোস্ট , নাট্যকলা বিভাগের অধ্যাপক শুখন সরকার ও সংস্কৃতি অঙ্গনের কিছু শিক্ষার্থীবৃন্দ সেখানে উপস্থিত ছিলেন।

পুষ্পস্তবক অর্পণ শেষে অধ্যাপক লুৎফর রহমান বলেন, মুজিবনগর সরকারের শপথ গ্রহণ নিঃসন্দেহে একটি ঐতিহাসিক পদক্ষেপ ছিল। যার ফলে মুক্তিবাহিনীদের সুশৃঙ্খলভাবে পরিচালনার মাধ্যমে মুক্তিযুদ্ধকে আরো বেশি বেগবান করেছিল এ সরকার। বঙ্গবন্ধুর পরামর্শে গড়া এ সরকার পাকহানাদারদের অত্যাচার নির্যাতনের চিত্র বিশ্বদরবারে তুলে ধরে বিশ্ব জনমত গঠন করতে সক্ষম হয়েছিল।

তিনি বলেন, ফলে টানা নয় মাসের সশস্ত্র এক সংগ্রামের মাধ্যমে ত্রিশ লক্ষ শহীদের বিনিময়ে বাঙালি অর্জন করতে সক্ষম হয়েছিল লাল সবুজের একটি পতাকা। বাঙালি পেয়েছিল ৫৬ হাজার বর্গমাইলের স্বাধীন-সার্বভৌম বাংলাদেশ।

১৭ এপ্রিল ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস। ১৯৭১ সালের এই দিনে কুষ্টিয়া জেলার তদানীন্তন মেহেরপুর মহকুমার বৈদ্যনাথতলার আম্রকাননে স্বাধীন-সার্বভৌম গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের প্রথম সরকার আনুষ্ঠানিকভাবে শপথ গ্রহণ করে। এ অনুষ্ঠানে ষোষিত হয় ১৯৭১ সালের ১০ এপ্রিলে গঠিত গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের স্বাধীনতার ঘোষণাপত্র।

বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধ পরিচালনা ও স্বদেশ ভূমি থেকে পাকিস্তান হানাদার বাহিনীকে বিতাড়িত করে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ঘোষিত ও নির্দেশিত পথে মুক্তিযুদ্ধের বিজয় অর্জনের লক্ষ্যে স্বাধীন-সার্বভৌম বাংলাদেশ সরকার গঠন করা হয়।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ