‘টুম্পা সোনা’ গানে নেচে বহিষ্কার কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫ শিক্ষার্থী

কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়
কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়  © ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস

সরস্বতী পূজায় কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরে ‘টুম্পা সোনা’ গানের তালে উদ্দাম নেচেছিলেন শিক্ষার্থীরা। এ ঘটনার জেরে পাঁচ ছাত্রকে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিল বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। যদিও স্কুল খুললেও কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয় এখনও চালু হয়নি।

এদিকে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, তাঁরা পূজার অনুমতিও দেয়নি। তা সত্ত্বেও পূজা হয়েছে এবং পূজা চলাকালীন একদল ছেলে-মেয়ে ‘টুম্পা সোনা’ গানের সঙ্গে উদ্দাম নেচেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। স্বাভাবিকবশতই শিক্ষাঙ্গনে শৃঙ্খলা তো বটেই, মহামারীর মধ্যে জমায়েত নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে। সে প্রেক্ষিতেই অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নিল বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, গোটা ঘটনায় কাঠগড়ায় দাঁড় করানো হয়েছিল তৃণমূল ছাত্র পরিষদকে। তবে পরে ওই ভাইরাল গানে উদ্দাম নৃত্য করা পাঁচ শিক্ষার্থীকে চিহ্নিত করে শাস্তি দেওয়া হয়। আগামী দুই বছরের জন্য কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে প্রবেশ নিষিদ্ধ করে দেওয়া হয়েছে তাদের।

গত ১৬ ফেব্রুয়ারি সরস্বতী পুজোর দিন বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরে ‘টুম্পা সোনা’ গানে শিক্ষার্থীদের উদ্দাম নাচের ভিডিও ভাইরাল হতেই বিতর্কের সৃষ্টি হয়। কীভাবে শিক্ষাঙ্গনে এমন ঘটনা ঘটতে পারে? প্রশ্ন তুলেছেন অনেকেই। পাশাপাশি তাদের শালীনতা বজায় রাখা নিয়েও প্রশ্ন ওঠে।

পরে ঘটনার জেরে এক তদন্ত কমিটি গঠন করে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। বিষয়টি খতিয়ে দেখার পরই সংশ্লিষ্ট কমিটির রিপোর্টের ভিত্তিতে ওই পাঁচ শিক্ষার্থীকে আগামী দুই বছরের জন্য বরখাস্ত করে দেওয়া হয়।


মন্তব্য

এ বিভাগের আরো সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ