চুপ থাকলেও দিতে হবে ভ্যাট

চুপ থাকলেও দিতে হবে ভ্যাট
মেডিটেশন  © সংগৃহীত

তিন বছর অব্যাহতির পর ২০২২-২৩ অর্থবছরের বাজেটে মেডিটেশন সার্ভিসের ওপর ভ্যাট আরোপের প্রস্তাব করেছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল।

বৃহস্পতিবার সংসদে বাজেট বক্তৃতাকালে অর্থমন্ত্রী বলেন, আমি মেডিটেশন সার্ভিস'-এর উপর বিদ্যমান ভ্যাট অব্যাহতি প্রত্যাহারের প্রস্তাব করছি।

২০১৮-১৯ অর্থবছরের বাজেট বক্তৃতার সময় আবারও মেডিটেশনের ওপর ভ্যাট আরোপের প্রস্তাব করা হয় কিন্তু অর্থমন্ত্রী সে বছরের প্রস্তাবিত অর্থ বিল সংশোধন করে পরবর্তী দুই বছরের জন্য এটি মূলতবি রাখেন। 

আরও পড়ুন: আবারও দাম বাড়ছে গ্যাস, বিদ্যুৎ, সারের

২০১৩-১৪ অর্থবছরের বাজেটে প্রথম মেডিটেশন সেবার ওপর ৭ শতাংশ ভ্যাট আরোপ করা হয়। কিন্তু মানুষের শারীরিক-মানসিক সুস্থতার জন্য এটি উপকারী বিবেচনায় পরের অর্থবছরই তৎকালীন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত এটি প্রত্যাহার করে নিয়েছিলেন।

২০১৭-১৮ অর্থ বছরের বাজেটে তৎকালীন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছিলেন, ধ্যান অথবা যোগ-মেডিটেশনের ওপর আগামী দুই বছরে কোনো ভ্যাট আরোপ না করার প্রস্তাব করছি। তবে সরকারের দীর্ঘদিনের এ চিন্তায় এবার পরিবর্তন আসছে। প্রাতিষ্ঠানিক মেডিটেশনের জন্য এখন থেকে দিতে হবে ভ্যাট।

উল্লেখ্য, মেডিটেশনকে এক বাক্যে বলা যায়, মাথা ঠান্ডা রাখা ও মনকে নেতিবাচক ভাবনা থেকে মুক্ত রাখার বৈজ্ঞানিক প্রক্রিয়া। মাথা ঠান্ডা রেখে ব্রেনকে বেশি পরিমাণে কাজে লাগাতে সাহায্য করে মেডিটেশন। অপরদিকে মনের নেতিবাচক চিন্তার বিনাশ করে ব্যক্তিকে আত্মপ্রত্যয়ী, সাহসী ও ইতিবাচক করে তোলে।


x

সর্বশেষ সংবাদ