খুবি শিক্ষকদের শাস্তির প্রতিবাদে বশেমুরবিপ্রবি শিক্ষক সমিতির বিবৃতি

অভিযুক্ত শিক্ষক আবুল ফজল, হৈমন্তী শুক্লা কাবেরী ও শাকিলা আলম (বাঁ থেকে)
অভিযুক্ত শিক্ষক আবুল ফজল, হৈমন্তী শুক্লা কাবেরী ও শাকিলা আলম (বাঁ থেকে)   © ফাইল ফটো

খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক বহিষ্কার কর্তৃপক্ষের অন্যায্য সিদ্ধান্ত জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বশেমুরবিপ্রবি) শিক্ষক সমিতি। বৃহস্পতিবার শিক্ষক সমিতির সভাপতি ড. মো. কামরুজ্জামান এবং সাধারণ সম্পাদক ড. মো. আবু সালেহ্ স্বাক্ষরিত একটি বিবৃতিতে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়।

বিবৃতিতে জানানো হয়, সম্প্রতি শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে সংহতি জানানাে, শৃঙ্খলা পরিপন্থী কাজ ও অসদাচরণের অভিযােগ এনে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় সিন্ডিকেটের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী একজন শিক্ষককে চাকরি থেকে বহিষ্কার, দুইজন শিক্ষককে চাকরি থেকে অপসারণ এবং দুইজন শিক্ষার্থীকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

এতে বলা হয়, শিক্ষার্থীদের ন্যায্য দাবির প্রতি শিক্ষকদের নৈতিক সমর্থন প্রদান করার কারণেই প্রশাসন এমন অন্যায্য সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে বলে বিভিন্ন গণমাধ্যমের বরাত থেকে বশেমুরবিপ্রবি শিক্ষক সমিতি অবগত হয়েছে। যা সমিতিকে দারুণভাবে বিস্মিত করেছে। উদ্ভুত অবস্থায়, বশেমুরবিপ্রবি শিক্ষক সমিতি এ ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছে।

একইসাথে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক এবং শিক্ষার্থীদের উপরে চাপিয়ে দেওয়া এই অন্যায্য সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসার জন্য খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে অনুরােধ জানাচ্ছে।


মন্তব্য

এ বিভাগের আরো সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ