ঢাবির ‘খ’ ও ‘ঘ’ ইউনিটে প্রথম দুই বন্ধু, ফেসবুকে প্রশংসার ঝড়

ঢাবির ‘খ’ ও ‘ঘ’ ইউনিটে প্রথম দুই বন্ধু, ফেসবুকে প্রশংসার ঝড়
জাকারিয়া ও সাফওয়ান  © ফাইল ছবি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) সামাজিক অনুষদভুক্ত ‘ঘ’ ইউনিটের ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষায় প্রথম হয়েছেন (মানবিক বিভাগ) রাফিদ হাসান সাফওয়ান নামে এক ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী। এর আগে বিশ্ববিদ্যালয়ের কলা অনুষদভুক্ত ‘খ’ ইউনিটে প্রথম স্থান অধিকার করেছিলেন মো. জাকারিয়া নামে আরেক ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী। তারা দুইজনই রাজধানী ডেমরার দারুন্নাজাত সিদ্দিকিয়া কামিল মাদ্রাসার উচ্চমাধ্যমিকের শিক্ষার্থী ছিলেন। আবার দুইজনই বন্ধু।

ঢাবির ভর্তি পরীক্ষায় দুই বন্ধুর প্রথম হওয়ার খবরে ফেসবুকে প্রশংসার ঝড় উঠেছে। নেটিজেনরা তাদের অভিনন্দন জানানোর পাশাপাশি অনেকেই আবার মাদ্রাসা শিক্ষাকে আর অবহেলা না করারও অনুরোধ জানান। তাদের মতে, মাদ্রাসার শিক্ষার্থীরাও যেকোন প্রতিযোগিতায় সবার আগে থাকতে পারে। তার বাস্তব প্রমাণ দারুন্নাজাতের জাকারিয়া-সাফওয়ান।

এর আগে সাফওয়ান ২০টি সাধারণ, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষায় ‘বি’ ইউনিটের প্রথম স্থান অধিকার করেছিলেন। এসময় সাফওয়ান প্রসঙ্গে জাকারিয়া বলেছিলেন, সেতো আমার বেস্ট ফ্রেন্ড। আমরা দুজন একসঙ্গে দারুন্নাজাত থেকে পড়াশোনা শেষ করেছি।

আরও পড়ুন: গুচ্ছের ‘বি’ ইউনিটে প্রথম মাদ্রাসা শিক্ষার্থী সাফওয়ান

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ‘ঘ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষার সাফওয়ানে সর্বোচ্চ স্কোর ৮৫ দশমিক ৫ নম্বর এসেছে বলে জানিয়েছেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান। বুধবার বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক আব্দুল মতিন চৌধুরী ভার্চুয়াল ক্লাসরুমে আনুষ্ঠানিকভাবে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশের সময় এ তথ্য জানান তিনি।

রাফিদ হাসান সাফওয়ান নোয়াখালীর চাটখিল উপজেলার চাটখিল পৌরসভার ৬ নং ওয়ার্ডের মাওলানা রাকিব উদ্দিনের ছেলে। তিনি ২০১৯ সালে রাজধানী ডেমরার দারুন্নাজাত সিদ্দিকিয়া কামিল মাদ্রাসা থেকে দাখিল এবং একই মাদ্রাসা থেকে ২০২১ সালে আলিম পাস করেন। তিন ভাই ও এক বোনের মধ্যে সাফওয়ান বড়। বাবা নোয়াখালীর চাটখিল উপজেলার হীরাপুর আলিম মাদ্রাসার আরবি প্রভাষক মাওলানা রাকিব উদ্দিন ও মা হোমিও চিকিৎসক কামরুন নাহার।

‘ঘ’ ইউনিটে (মানবিক) সেরা হওয়ার প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে সাফওয়ান বলেন, আমার এ সাফল্য আল্লাহর রহমতে হয়েছে। আমি অনেক পরিশ্রম করেছি। আমার সাফল্যে মা-বাবার দোয়া এবং আত্মীয় স্বজন, শিক্ষকসহ অনেকের প্রেরণা ও অবদান রয়েছে।

এর আগে গত ২ নভেম্বর প্রকাশিত কলা অনুষদভুক্ত ‘খ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় প্রথম স্থান অধিকার করা জাকারিয়ার প্রাপ্ত নম্বর ছিল ৮০ দশমিক ৫০। মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক ফলসহ মোট প্রাপ্ত নম্বর ১০০ দশমিক ৫০। ১২০ নম্বরের মধ্যে। তিনি পটুয়াখালী সদর উপজেলার বদরপুর ইউনিয়নের বাসিন্দা। 


মন্তব্য

x