এক বছরে সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের জমা ৩ হাজার কোটি

সুইস ব্যাং
সুইস ব্যাংক  © ফাইল ছবি

সুইজারল্যান্ডের বিভিন্ন ব্যাংকে গত এক বছরে প্রায় তিন হাজার কোটি টাকা জমা করেছেন বাংলাদেশিরা। এর ফলে বর্তমানে দেশটির ব্যাংকগুলোতে বাংলাদেশিদের টাকার পরিমাণ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৮ হাজার ২৭৫ কোটি।

বৃহস্পতিবার (১৬ জুন) সুইজারল্যান্ডের কেন্দ্রীয় ব্যাংক কর্তৃক প্রকাশিত বার্ষিক প্রতিবেদনে এসব তথ্য উঠে এসেছে।

প্রতিবেদনের তথ্য অনুযায়ী, ২০২১ সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত সুইজারল্যান্ডে বাংলাদেশিদের আমানত দাঁড়িয়েছে ৮৭ কোটি ১১ লাখ সুইস ফ্রাঁ, প্রতি ফ্রাঁ ৯৫ টাকা করে ধরলেও দেশি মুদ্রায় যা ৮ হাজার ২৭৫ কোটি। এক বছর আগে, এই টাকার অঙ্ক ছিল ৫৬ কোটি ২৯ লাখ ফ্রাঁ বা ৫ হাজার ৩৪৭ কোটি টাকা। অর্থাৎ, এক বছরেই সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের আমানত বেড়েছে ২ হাজার ৯২৮ কোটি টাকা।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, যদি কোনো বাংলাদেশি নাগরিকত্ব গোপন রেখে অর্থ জমা রেখে থাকেন তবে ওই টাকা এই হিসাবে অন্তর্ভূক্ত হয়নি। গচ্ছিত রাখা স্বর্ণ বা মূল্যবান সামগ্রীর আর্থিক মূল্যমানও হিসাব করা হয়নি।

আরও পড়ুন: দিন-রাত আম গাছে কাটিয়ে দিচ্ছেন রাবি শিক্ষার্থীরা, থাকেন বস্তা হাতে

প্রতিবেদন থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, ২০০২ সালের মাত্র ৩ কোটি ১০ লাখ ফ্রাঁ আমানত, দুই দশকে বেড়েছে প্রায় ৩০ গুণ। বৃদ্ধির হারও সবচেয়ে বেশি ছিল ২০২১ সালে।

প্রতিবেদন অনুসারে, গত বছর মোট আমানত বেড়েছে সুইজারল্যান্ডে। ২০২১ সালের শেষে দেশটির ব্যাংকগুলোতে মোট আমানত ছিল ১ লাখ ৪০ হাজার কোটি ফ্রাঁ। আগের বছরের চেয়ে বেড়েছে ৪ হাজার কোটি ফ্রাঁ। ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের নানা পদক্ষেপে মাঝে কয়েকবছর কমলেও, গত বছর বেড়েছে ভারতীয়দের আমানত।


x