ইউনেসকোর ওয়েবসাইটে বাংলাদেশের স্কুল নিয়ে ভুল তথ্য

ইউনেসকো
ইউনেসকোর ওয়েবসাইটে প্রকাশিত ব্লগে ব্যবহৃত ম্যাপে বাংলাদেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা দেখাচ্ছে  © স্ক্রিনশট

জাতিসংঘের শিক্ষা, বিজ্ঞান ও সংস্কৃতিবিষয়ক সংস্থা ইউনেসকোর ওয়েবসাইটে প্রকাশিত একটি ব্লগে করোনার সময়ে বিভিন্ন দেশের স্কুল খোলা বা বন্ধের একটি পরিসংখ্যান দেওয়া হয়। ‘এডুকেশন: ফ্রম ডিজরাপশন টু রিকভারি’ শিরোনামে প্রকাশিত ব্লগে ভুলভাবে বাংলাদেশের স্কুল খোলা রয়েছে বলে দেখানো হয়েছে।

সোমবার (২৮ জুন) প্রকাশিত ব্লগটিতে বলা হয়, এক বছরের মহামারি কোভিড-১৯-এর ফলে স্কুল বন্ধের প্রভাবে বিশ্বের প্রায় অর্ধেক শিক্ষার্থী ক্ষতিগ্রস্ত। এই স্বাস্থ্য সংকটের কারণে আরও ১০ কোটি শিশু নূন্যতম শিক্ষাগত দক্ষতা অর্জনের সুযোগ থেকে বঞ্চিত হবে।

ব্লগে দুটি ম্যাপ ব্যবহার করা হয়েছে। প্রথমটি হচ্ছে কোভিড-১৯-এর কারণে বিশ্বের স্কুল বন্ধের তথ্য দিয়ে করা হয়েছে। এটিতে কোন কোন দেশের স্কুল খোলা বা বন্ধ কিংবা আংশিক খোলা তা দেখা যাচ্ছে। ‘গ্লোবাল মনিটরিং অব স্কুল ক্লোজারস কজড বাই কোভিড-১৯’ নামক বাংলাদেশের ম্যাপে ‘স্ট্যাটাস : ফুললি ওপেন’ বা ‘পুরোপুরি খোলা’ লেখা দেখানো হয়েছে।

আর দ্বিতীয় ম্যাপটিতে মহামারিকালীন স্কুল বন্ধের মোট সময়সীমা দেখানো হয়েছে। এখানে অবশ্য বাংলাদেশে ম্যাপে ৪১+ সপ্তাহ ধরে স্কুল বন্ধ রয়েছে লেখা আছে। ‘টোটাল ডিউরেশন অব স্কুল ক্লোজারস’ নামক ম্যাপে বাংলাদেশের নামের নিচে ৫০ সপ্তাহও উল্লেখ করা হয়েছে।

অথচ করোনার প্রাদুর্ভাব শুরুর সময় গত বছরের ১৭ মার্চ থেকে দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো বন্ধ রয়েছে। গত ১৩ জুন প্রথম আলোয় ‘শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পাঠদান : ছুটি বাড়ছেই, নেই সুনির্দিষ্ট পরিকল্পনা’ শিরোনামে প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়, ‘করোনা মহামারির শুরুর দিকে ২০২০ সালের ১৭ মার্চ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো বন্ধ হয়ে যাওয়ার পর থেকে মন্ত্রণালয় নিয়মিত বিরতিতে বিজ্ঞপ্তি পাঠিয়ে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের মেয়াদ বাড়ানোর খবর জানাচ্ছে।’


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ