এইচএসসিতে অটোপাসেও সন্তুষ্ট নন ১৫ হাজার শিক্ষার্থী

‘রিভিউ’ আবেদন করেছেন ১৫ হাজার শিক্ষার্থী
শিক্ষা বোর্ডে এইচএসসির ফল পরিবর্তনের জন্য ‘রিভিউ’ আবেদন করেছেন ১৫ হাজার শিক্ষার্থী  © প্রতীকী ছবি

করোনাভাইরাসের কারণে গত বছরের এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা বাতিল করে অটোপাস দেওয়া হয়েছে। জেএসসি-এসএসসি এবং সমমানের পরীক্ষার ফলাফল গড় করে পরীক্ষা ছাড়াই এইচএসসির ফল ঘোষণা করা হয়েছে। এতে সবাই পাস করেছে, ফেল নেই কেউ। গত ৩০ জানুয়ারি ঘোষিত এইচএসসির ফলাফলে জিপিএ-৫ পেয়েছে প্রায় এক লাখ ৬১ হাজারের বেশি।

তবে এই অটোপাসেও অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন প্রায় ১৫ হাজার শিক্ষার্থী। শিক্ষা বোর্ডে ফল পরিবর্তনের জন্য ‘রিভিউ’ আবেদন করেছেন তারা। ফল প্রকাশের পরের দিন ৩১ জানুয়ারি থেকে রিভিউ করার সুযোগ দিয়েছে বোর্ডগুলো। শনিবার (৬ ফেব্রয়ারি) রাত ১২টা পর্যন্ত এ সুযোগ দেওয়া হয়।

বোর্ড থেকে প্রাপ্ত তথ্যমতে, ফল রিভিউয়ের আবেদন করেছেন প্রায় ১৫ হাজার শিক্ষার্থী। এদের মধ্যে বিজ্ঞানের সবচেয়ে বেশি। আর বোর্ডগুলোর মধ্যে ঢাকা শিক্ষা বোর্ডে সবচেয়ে বেশি রিভিউ আবেদন পড়েছে। তবে কবে এর ফল প্রকাশ করা হবে তা জানা যায়নি।

এদিকে জেএসসি-এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় জিপিএ-৫ পেয়েও এইচএসসিতে জিপিএ-৫ না পাওয়া ৩৯৬ জনের বিষয়ে লিখিতভাবে ব্যাখ্যা দেবে শিক্ষা বোর্ডগুলো। জেএসসি ও সমমানের ২৫ শতাংশ এবং এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ৭৫ শতাংশ ধরে এইচএসসির ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে।


মন্তব্য