প্রেমিকার কাছে হিরো হতে ব্যাংক থেকে ৭ কোটি টাকা চুরি!

রাবি
টাকা   © প্রতীকী ছবি

কথায় রয়েছে, ভালোবাসা অন্ধ। তবে অন্ধপ্রেম কতটা বড় অপরাধ তা ঠিকই টের পাচ্ছেন ভারতের এক ব্যাংক ম্যানেজার। তার বিরুদ্ধে প্রেমিকার জন্য বিশাল অংকের আর্থিক অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। বর্তমানে জেলে রয়েছেন তিনি। খবর ভারতীয় সংবাদমাধ্যম সংবাদ প্রতিদিন।

সংবাদ প্রতিদিন এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, অভিযুক্ত ব্যাংক কর্মকর্তা হরি শংকর বেঙ্গালুরুর হনুমন্তনগরের একটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকের ম্যানেজার। সম্প্রতি ডেটিং অ্যাপে এক তরুণীর সঙ্গে শংকরের আলাপ হয়। পর্যায়ক্রমে তা প্রেমের সম্পর্কে রূপ নেয় এবং প্রেম ধীরে ধীরে গভীর হতে থাকে। এর ফলে, প্রেমিকার নিকটে হিরো হওয়ার চেষ্টা করেন তিনি। ব্যাংক থেকে হাতিয়ে নেন মোটা অংকের টাকা।

ব্যাংকের জোনাল ম্যানেজারের অভিযোগ বরাতে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, প্রায় ৫ কোটি ৭০ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন সেই ব্যাংক কর্মকর্তা, বাংলাদেশি টাকায় যার পরিমাণ প্রায় ৬ কোটি ৭৬ লাখ টাকা। ঘটনাটি গত ১৩ থেকে ১৯ মে-এর মধ্যে ঘটেছে। তবে শংকর একা এই আর্থিক অনিয়মে জড়িত নন, আরও দুইজন এতে জড়িত রয়েছেন। তারা হলেন শংকরের দুই সহকর্মী কৌশল্যা এবং মুনিরাজুও।

এদিকে এ ঘটনায় ব্যাংক কর্মকর্তা শংকর ও তার দুই সহকর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তাদেরকে ১০ দিনের জন্য পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে, এক নারী গ্রাহকের ১ কোটি ৩০ লাখ রুপি ফিক্সড ডিপোজিটকে কাজে লাগিয়ে প্রতারণার ছক করেন শংকর। ফিক্সড ডিপোজিটকে সিকিউরিটি হিসেবে রেখে ওই ব্যাংক থেকে ৫ কোটি ৭০ লাখ রুপি তুলে নেওয়া হয়। সেই কাজে শংকরকে সাহায্য করেন ওই দুই সহকর্মী।

তবে অভিযোগ অস্বীকার করেছেন শংকর। তিনি জানিয়েছেন, ডেটিং অ্যাপে তরুণীর সঙ্গে আলাপে লোভ দেখিয়ে সাইবার অপরাধীরা এই অর্থ হাতিয়ে নিয়েছে।  


x