ঢাবিতে যাকারিয়া শুভ স্মারক আন্তঃবিভাগ বিতর্ক প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত

ম্যানেজমেন্ট ডিবেটিং ফোরাম
সমাপনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য দিচ্ছেন প্রধান অতিথি  © টিডিসি ফটো

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ম্যানেজমেন্ট বিভাগের সাবেক ছাত্র ও বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংস্কৃতিক অঙ্গনের প্রিয়মুখ যাকারিয়া বিন হক শুভর ১ম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে বিতর্ক প্রতিযোগিতার আয়োজন করেছে ম্যানেজমেন্ট ডিবেটিং ফোরাম।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ম্যানেজমেন্ট অ্যালায়েন্সের সার্বিক সহযোগিতায় ‘১ম যাকারিয়া শুভ স্মারক আন্তঃবিভাগ বিতর্ক প্রতিযোগিতা- ২০২১’ নামে দুদিন ব্যাপী এই কর্মসূচি পালিত হয়েছে।

মোট ১৬টি দলের অংশগ্রহণে গত ২৩ সেপ্টেম্বর গ্রুপ পর্ব ও সেমিফাইনাল এবং ২৪ সেপ্টেম্বরে ফাইনাল অনুষ্ঠিত হয়। এরপর সমাপনী পর্বে ফলাফল ঘোষণার মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি হয়।

প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন হয়েছে খুলনা বিশববিদ্যালয়ের টিম নৈয়ায়িক অদম্য এবং রানার্সআপ হয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়ার্ল্ড রিলিজিয়নস ডিবেটিং ক্লাব। সেরা বক্তা হওয়ার গৌরব অর্জন করেছেন মনিরুজ্জামান রিয়াদ।

২০২০ সালের ২৪ সেপ্টেম্বর রাতে রাজধানীর মোহাম্মদপুরের তাজমহল রোডের ভাড়া বাসা থেকে ঢাবির ম্যানেজমেন্ট বিভাগের ছাত্র জাকারিয়া বিন হক শুভর মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনাকে প্রাথমিকভাবে আত্মহত্যা বলা হলেও, শুভর পরিবার ও বন্ধুদের দাবী, তাকে হত্যা করা হয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াকালীন পরিচিত মুখ ছিলো যাকারিয়া বিন হক শুভ। ছিল বিভিন্ন সংগঠনের সাথে যুক্ত। ডিবেটিং ছিল তার অন্যতম পছন্দের কাজ। মৃত্যুবার্ষিকীতে শুভর স্মরণেই এই বিতর্ক প্রতিযোগিতার আয়োজন করেছে তার শুভাকাঙ্ক্ষীরা।

বিতর্ক প্রতিযোগীতার সমাপনী অনুষ্ঠানের সঞ্চালনা করেন ম্যানেজমেন্ট ডিবেটিং ফোরামের মারজান পারভেজ শুভ্র।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ম্যানেজমেন্ট বিভাগের সাবেক ছাত্র এবং ইউ আর এম এস বাংলাদেশের কান্ট্রি ডিরেক্টর ও ন্যাশনাল ডিবেট ফেডারেশন, বাংলাদেশের সভাপতি এ কে এম শোয়েব।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ম্যানেজমেন্ট বিভাগের ১ম ব্যাচের সাবেক ছাত্র ও ম্যানেজমেন্ট বিভাগের অ্যালামনাই গালিব খান, কনসালটেন্ট সাইকোলজিস্ট ও কাউন্সেলর জেসমিন মাহমুদা যুথি এবং প্রয়াত যাকারিয়া শুভর বড় বোন ইয়াসমিন বিনতে হক।

অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন ম্যানেজমেন্ট ডিবেটিং ফোরামের সভাপতি স্বর্ণালি সিদ্দিকা।

প্রধান অতিথি জনাব এ কে এম শোয়েব তার বক্তব্যে বিতর্ককে পাঠ্যসূচিতে অন্তর্ভুক্ত করার জোড়ালো দাবি জানিয়েছেন।

বিশেষ অতিথি জনাব মুহাম্মদ গালিব খান যাকারিয়া শুভর স্মৃতিচারণ করে তার হত্যার সুষ্ঠু তদন্ত ও বিচার দাবী করেন।

তরুণদের মানসিক স্বাস্থ্য সচেতনতা নিয়ে বেশকিছু টিপস দিয়েছেন কনসালটেন্ট সাইকোলজিস্ট ও কাউন্সেলর জেসমিন মাহমুদা যুথি।

প্রয়াত যাকারিয়া বিন হক শুভর বোন ইয়াসমিন বিনতে হক এমন বিতর্ক প্রতিযোগিতা আয়োজন করার জন্য ম্যানেজমেন্ট অ্যালায়েন্স ও ম্যানেজমেন্ট ডিবেটিং ফোরামের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন।

ভাইকে স্মরণ করে তিনি বলেন, আমার ভাইয়ের স্মরণে এ বিতর্ক প্রতিযোগিতার আয়োজনে আমরা সকলেই সম্মানিত ও অনেক বেশি কৃতজ্ঞ। প্রতিছর যেন এ বিতর্ক প্রতিযোগিতার আয়োজন চলমান থাকে সেই প্রত্যাশা করছি। আমার ভাই বেঁচে থাকুক তার প্রাণ- বিতর্কের মাধ্যমে।

শুভ হত্যার সুষ্ঠু তদন্তের দাবি জানিয়ে তার বোন বলেন, আমার ভাইকে আপনারা জানেন-চিনেন। এটাও জানেন সে কখনোই আত্মহত্যা করতে পারেনা। গত এক বছর ধরে আমরা একটি সুষ্ঠু তদন্তের অপেক্ষায় আছি। আজকে উপস্থিত আপনাদের সকলের মাধ্যমে আইনের প্রতি শ্রদ্ধা রেখে আমার আকূল আবেদন, একটি সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে সত্যটা সবার সামনে নিয়ে আসা হোক। আমরা এর বিচার চাই।

প্রতিযোগিতার আয়োজক ম্যানেজমেন্ট ডিবেটিং ফোরামের সভাপতি স্বর্ণালি সিদ্দিকা বলেন, বিতর্ক একটা সুন্দর শিল্প, তাই আমরা চাই সবাই এই সুন্দর শিল্পের চর্চা করুক। আর যে উদ্দেশ্য আমাদের এই আয়োজন, অর্থাৎ শুভ ভাই হত্যার সুষ্ঠু তদন্ত এবং বিচার যেন পাই এজন্য কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।

সমাপনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত সকলে যাকারিয়া শুভ স্মরণে এমন আয়োজনের জন্য ম্যানেজমেন্ট ডিবেটিং ফোরামকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ