ঢাবি মুরাদনগর ছাত্রকল্যাণ পরিষদের নেতৃত্বে আবির-কামরুজ্জামান

ঢাবি
ঢাবি মুরাদনগর ছাত্রকল্যাণ পরিষদের নেতৃত্বে আবির-কামরুজ্জামান  © সংগৃহীত

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নরত কুমিল্লা জেলার মুরাদনগনের শিক্ষার্থীদের সংগঠন 'মুরাদনগর ছাত্রকল্যাণ পরিষদ' এর নতুন কমিটি গঠন করা হয়েছে। এসো মিলি গোমতীর টানে, শিকড়ের বন্ধনে" স্লোগানে সংগঠনটির পথচলা শুরু হয়। নবগঠিত কমিটির সভাপতি হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিবিদ্যা বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী মো. আসফাক সরকার আবির এবং সাধারণ সম্পাদক হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন একই বর্ষের মার্কেটিং বিভাগের শিক্ষার্থী মো. কামরুজ্জামান।

রোববার (২৫ জুলাই) একটি ওয়েবিনার-এর মাধ্যমে সংগঠনের নবীন ও প্রবীণদের উপস্থিতিতে "ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় মুরাদনগর ছাত্র কল্যাণ পরিষদ"-এর নতুন কমিটির নব-নির্বাচিতদের নাম ঘোষণা করেন বিদায়ী সভাপতি ফখরুল ইসলাম এবং সাধারণ সম্পাদক রমজান আলী।

কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন: সহ সভাপতি- রাকিবুল ইসলাম, আদহাম হোসেন আলিফ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক-আশরাফুল ইসলাম, মেহেদী হাসান, ফাহিমা আক্তার; সাংগঠনিক সম্পাদক- মো. শাকিল হোসাইন, জাহিদুল ইসলাম, তানজিনা আক্তার তৃপ্তি, মো. রুহুল আমিন; তথ্য, প্রচার ও প্রযুক্তি সম্পাদক মো: আবদুল্লাহ; উপ তথ্য, প্রচার ও প্রযুক্তি সম্পাদক রবিউল হাসান; দপ্তর সম্পাদক রিফাত ইবনে জামান; অর্থ বিষয়ক সম্পাদক আহসান হাবিব; আইন বিষয়ক সম্পাদক গোলাম সারেয়ার; ক্রীড়া সম্পাদক ইব্রাহীম খলিল; আপ্যায়ন বিষয়ক সম্পাদক মো. সাকিল খান; ছাত্রী বিষয়ক সম্পাদক রিয়া আক্তার; শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক সাইদুল ইসলাম; সাহিত্য ও সংস্কৃতি সম্পাদক নাহিদা আক্তার খুশি।

এছাড়াও সহ সম্পাদক পদে বৃষ্টি আক্তার, মো. মেহেদী হাসান, মো. মিরাজ উদ্দিন এবং কার্যনির্বাহী সদস্য পদে মো.আরিফ, আয়মান আহমেদ তকি, আলফে সানি নির্বাচিত হয়েছেন।

নবনির্বাচিত সভাপতি মো. আশফাক সরকার আবির বলেন, একদিকে শেকড়ের টান ও অন্যদিকে আবেগের জায়গা এই দু'য়ের মিশেলে গঠিত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় মুরাদনগর ছাত্রকল্যাণ পরিষদ। নবগঠিত কমিটির সভাপতি নির্বাচিত হতে পেরে আমি অত্যন্ত আনন্দিত। প্রাণের এই সংগঠনকে সামনে থেকে নেতৃত্ব দিতে আমি নিজেকে উজাড় করে দিবো ইনশাআল্লাহ। সেই সাথে কমিটির দায়িত্বপ্রাপ্ত সকলের পরামর্শ ও মতের উপর ভিত্তি করে সংগঠনের আগামী দিনের সকল কার্যক্রম এগিয়ে নিয়ে যাবো।

তিনি আরও বলেন, মুরাদনগর থেকে যেন সামনের বছরগুলোতে আরো অনেক বেশিসংখ্যক শিক্ষার্থী স্বপ্নের ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স পেয়ে মুরাদনগরকে আলোকিত করতে পারে সেদিকটায় আমি গুরুত্ব দিবো। সর্বোপরি সংগঠনের শিক্ষা,সাহিত্য, সংস্কৃতি ও ক্রীড়া কার্যক্রম ধারাবাহিকতার সাথে পরিচালনা করে একটি গতিশীল সংগঠন উপহার দেওয়ার ও আলোকিত মুরাদনগর গড়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করছি।"

সাধারণ সম্পাদক মো. কামরুজ্জামান বলেন, সংগঠনের সভাপতি, অন্যান্য সদস্যবৃন্দ, উপদেষ্টামণ্ডলি এবং প্রাক্তন কমিটির সহযোগিতা পেলে ক্যারিয়ার আড্ডা, উচ্চ শিক্ষা বিষয়ক সেমিনার, বিতর্ক প্রতিযোগিতা, রিসার্স টক, ট্যালেন্ট হান্ট কম্পিটিশন, বৃত্তি তহবিল গঠনসহ সংগঠনের অভিষ্ট লক্ষ্যে পৌঁছানোর জন্য আমরা প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। কমিটির সকল সদস্যদের সাথে পরামর্শ ও সমন্বয় করে ভবিষ্যৎ কর্মপরিকল্পনা বাস্তবায়নে সচেষ্ট থাকব। আমি সকল সদস্যদের সার্বিক সহযোগিতা এবং সংগঠনের সর্বাঙ্গীণ সাফল্য কামনা করি।

এছাড়াও বিদায়ী কমিটির সভাপতি ফখরুল ইসলাম এবং সাধারণ সম্পাদক মো. রমজান আলী নতুন কমিটির নব-নির্বাচিত সকলকে অভিনন্দন জানান এবং সংগঠনের যেকোনো প্রয়োজনে পরামর্শ দিয়ে পাশে থাকার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেছেন।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ