ঢাবির শতবর্ষের মূল অনুষ্ঠান হবে নভেম্বরে

 শতবর্ষ
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়   © লোগো

১৯২১ সালে প্রতিষ্ঠিত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ১ জুলাই শতবর্ষ পূর্ণ করবে। ওইদিনকে কেন্দ্র করে সীমিত পরিসরে প্রতীকী কর্মসূচির মাধ্যমে শতবর্ষ পূর্তির মূল অনুষ্ঠানের অগ্রবর্তী অনুষ্ঠান ১ জুলাই আয়োজন করা হবে। তবে করোনা সংক্রমণের কারণে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শতবর্ষের মূল অনুষ্ঠান হবে নভেম্বরে। বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে এ সংক্রান্ত একটি বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয়েছে।

এতে বলা হয়, আগামী ১ নভেম্বর ২০২১ তারিখ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে শতবর্ষের মূল অনুষ্ঠান বর্ণাঢ্য ও জাঁকজমকপূর্ণভাবে আয়োজন করা হবে। রাষ্ট্রপতি ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চ্যান্সেলর মো. আবদুল হামিদ প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে শতবর্ষের মূল অনুষ্ঠানের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন বলে আশা করা যাচ্ছে।  

শতবর্ষের কর্মসূচি:

আগমী ১ জুলাই সকাল সাড়ে ১০টায় নবাব নওয়াব আলী চৌধুরী সিনেট ভবনের সামনে জাতীয় পতাকা ও বিশ্ববিদ্যালয়ের পতাকা উত্তোলনের মাধ্যমে দিবসটির আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন ঘোষণা করবেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান।

বিশ্ববিদ্যালয় দিবসের দিন বিকেল ৪টায় প্রশাসনিক ভবনে প্রফেসর আব্দুল মতিন চৌধুরী ভার্চ্যুয়াল ক্লাসরুমে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামানের সভাপতিত্বে অনলাইন ভার্চ্যুয়াল মিটিং প্ল্যাটফর্ম জুমের মাধ্যমে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হবে।  

আলোচনা সভায় বিশিষ্ট ভাষাসৈনিক, কলামিস্ট ও বুদ্ধিজীবী সর্বজন শ্রদ্ধেয় আবদুল গাফফার চৌধুরী সংযুক্ত হয়ে মূল বক্তব্য উপস্থাপন করবেন। এছাড়াও এ আলোচনা অনুষ্ঠানে প্রো-উপাচার্যদ্বয়, কোষাধ্যক্ষ, প্রাক্তন উপাচার্য, ডিন, প্রভোস্ট, শিক্ষক সমিতির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক, রেজিস্টার্ড গ্র্যাজুয়েট এবং সমিতিগুলোর সভাপতি/সাধারণ সম্পাদকরা অনলাইনে সংযুক্ত থাকবেন।

বিশ্ববিদ্যালয় দিবস উপলক্ষে একটি স্মরণিকা প্রকাশের লক্ষ্যে বাংলা বিভাগের চেয়ারম্যানকে আহ্বায়ক করে একটি কমিটি গঠন করা হয়। 


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ