নজরকাড়া গোলে নতুন রেকর্ড মেসির

লিওনেল মেসি
নতুন বিশ্বরেকর্ড গড়েছেন লিওনেল মেসি  © টুইটার

চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ও ইউরোপিয়ান কাপ মিলিয়ে ১৮ বার পর্তুগালে গিয়ে জিততে পারেনি ফরাসি কোনো ক্লাব। সেই ধারাই বজায় রইল। মেসি গোল করলেও ড্র নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয়েছে পিএসজির। ৪১ মিনিটে বেনফিকার এনজো ফার্নান্দেজের ক্রস ঠেকাতে গিয়ে আত্মঘাতী গোল করেন পর্তুগিজ রাইটব্যাক দানিলো।

বেনফিকার সমতায় ফেরা এই গোলে পিএসজির শেষ পর্যন্ত জয় পাওয়া হয়নি। ১-১ গোলের ড্রয়ে পয়েন্ট কেড়েছে পর্তুগিজ ক্লাবটি। তবে লিওনেল মেসিকে ঠেকানো যায়নি। চ্যাম্পিয়নস লিগে আগের দুইবারের মুখোমুখিতে আর্জেন্টাইন তারকাকে গোলবঞ্চিত করেছে বেনফিকা। তবে এদিন ২২ মিনিটে মেসি যে গোল করেন তা ছিল নজরকাড়া।

ডান প্রান্তে বল পেয়ে বক্সের মাথায় এমবাপ্পেকে পাস দেন মেসি। ফরাসি তারকা বলটা দেন পেছনে চলে আসা নেইমারকে। ততক্ষণে ডান দিক দিয়ে মেসি বক্সের মাথায়, নেইমারের পাস এবং সেই বাঁ পায়ের বাঁকানো শট। বলটা বাঁক নিয়ে জালে। বেনফিকা সমর্থকেরা অনেক দিন গোলটি মনে রাখবেন।

আরো পড়ুন: সাব্বিরের টিকটকে ‘পাকিস্তান জিন্দাবাদ’

এর মাধ্যমে চ্যাম্পিয়নস লিগে প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে ৪০টি আলাদা প্রতিপক্ষের বিপক্ষে গোলের রেকর্ড গড়লেন মেসি। বিরতির পর জয়ের চেষ্টা করেও সফল হয়নি পিএসজি। নেইমারের ওভারহেড কিক ক্রসবারে লেগেছে। এমবাপ্পে ও আশরাফ হাকিমি নিয়েছেন দারুণ শট।

বেনফিকাও বসে থাকেনি। ম্যাচ শেষের ১০ মিনিট আগের শট গোলকিপার দোন্নারুম্মা রুখে না দিলে হয়তো পিএসজিকে হার নিয়ে ফিরতে হতো। লিগে ‘এইচ’ গ্রুপে তিন ম্যাচে ৭ পয়েন্ট করে পিএসজি ও বেনফিকার।


x

সর্বশেষ সংবাদ