শপথগ্রহণকারী মার্কিন সেনাপ্রধান নন, বাইবেল নিতে অস্বীকারও করেননি

ফেসবুক
ভুল তথ্যভিত্তিক ফেসবুক পোস্ট  © স্ক্রিনশট

সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে একটি ভিডিও শেয়ার করে দাবি করা হয়েছে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নতুন সেনাপ্রধান বাইবেল নিয়ে শপথ করতে অস্বীকৃতি জানিয়েছেন এবং কোরআন শরীফ নিয়ে শপথ করেছেন।

গত ৪ জুলাই ‘শহীদুর রহমান শহীদ’ নামক ফেসবুক একাউন্ট থেকে ভিডিওটি পোস্ট করে বলা হয়, ‘#আলহামদুলিল্লাহ।
নতুন মার্কিন সেনা প্রধান বাইবেল নিয়ে শপথ করতে অস্বীকার করেন তারপর পবিত্র কুরআন মাজিদ নিয়ে শপথ গ্রহণ করেন,মন দিয়ে শুনুন’। এই ভিডিওটি শেয়ার করে একই দাবি করে ফেসবুকের বেশকিছু জায়গায় পোস্ট করা হয়, দেখুন এখানে, এখানে, এবং এখানে

অথচ দ্যা ডেইলি ফ্যাক্টচেক যাচাই করে দেখেছে, পোস্টের ভিডিওতে দৃশ্যমান ইউনিফর্ম পরিহিত শপথগ্রহণকারী ব্যাক্তি মার্কিন সেনাপ্রধান নন। তিনি হচ্ছেন যুক্তরাষ্ট্রের নিউজার্সি অঙ্গরাজ্যের প্যাটারসন শহরের পুলিশপ্রধান নিযুক্ত হওয়া তুর্কি বংশোদ্ভুত আমেরিকান ইবরাহিম মাইক বায়কোরা। তাঁর শপথগ্রহণের ঘটনাও সাম্প্রতিক নয়, ২০২০ সালের ৪ ফেব্রুয়ারির। মুসলিম হওয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের আইন অনুযায়ী নিজস্ব ধর্মগ্রন্থ পবিত্র কোরআনে হাত রেখে শপথ নেন তিনি। সেসময় যুক্তরাষ্ট্রের স্থানীয় ‘প্যাটারসন টাইমস’ এবং তুরস্কের সংবাদমাধ্যম ‘ডেইলি সাবাহ’ প্রকাশিত প্রতিবেদনে বাইবেল নিয়ে শপথগ্রহণে অস্বীকারের কোনো কথা পাওয়া যায়নি। ‘আলাতুর্কা টিভি’ নামক ইউটিউব চ্যানেলে পুরো ভিডিওটি পাওয়া যায়।

ডেইলি সাবাহ’র প্রতিবেদনে বলা হয়, মঙ্গলবার (৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০) যুক্তরাষ্ট্রের নিউজার্সি অঙ্গরাজ্যের প্যাটারসন সিটি হলে তুর্কি বংশোদ্ভুত ইবরাহিম মাইক বায়কোরা পবিত্র কোরআনের ওপর বাম হাত রেখে প্যাটারসনের ১৭তম পুলিশ প্রধান হিসেবে শপথ নেন। যুক্তরাষ্ট্রের জতীয় সঙ্গীত পরিবেশনের মধ্য দিয়ে তিন দশকের বেশি সময় ধরে পুলিশে কর্তব্যরত ইবরাহিম বায়কোরার শপথ অনুষ্ঠান শুরু হয়। এ সময় নিউইয়র্ক ও নিউজার্সির উর্দ্ধতন পুলিশ কর্মকর্তারাসহ তুর্কি কমিউনিটির লোকজন উপস্থিত ছিলেন।

তুরস্কের ডেইলি সাবাহর নিউজ ও আনাদোলু এজেন্সির টুইটারের স্ক্রিনশট

প্যাটারসন টাইমসের প্রতিবেদনে বলা হয়, তুরস্কের এস্কিসেহিরে জন্মগ্রহণকারী ইবরাহিম বায়কোরা শৈশবে পরিবারের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রে পাড়ি জমান। নিউ জার্সি অঙ্গরাজ্যের প্যাটারসন শহরে বেড়ে ওঠেন তিনি স্থানীয় স্কুলে মাধ্যমিক (১২) ও উচ্চ মাধ্যমিক শেষ করে বোস্টন ইউনিভার্সিটিতে পড়তে যান। ব্যয়বহুল হওয়ায় সেখান থেকে চলে এসে রাটগারস ইউনিভার্সিটিতে ব্যবসায় প্রশাসন ও কেমিকেল ইঞ্জিনিয়ারিংয়ে দুটি স্নাতক ডিগ্রি নেন। এরপর পুলিশে যোগ দেন তিনি। ৩২ বছরের মাথায় প্যাটারসনের পুলিশ প্রধানের দায়িত্ব পেয়েছেন ইবরাহিম বায়কোরা।

ফেসবুক পোস্টগুলোর ভিডিওতে শপথগ্রহণকারী প্যাটারসন শহরের পুলিশ প্রধান ইবরাহিম বায়কোরাকে মার্কিন সেনাপ্রধান দাবি করা হয়েছে যেটি সত্য নয় এবং বাইবেল অস্বীকারের কথা বলা হয়েছে তারও সত্যতা পাওয়া যায়নি।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ

x