ব্রাজিল সমর্থক বলে দাবি করা যুবকের বিষপানের খবরে গোঁজামিল

গুগল সার্চ
যুগান্তর সমকাল ও মানবজমিনের প্রতিবেদন  © স্ক্রিনশট

কোপা আমেরিকার ফাইনাল খেলায় আর্জেন্টিনার কাছে ব্রাজিল হেরেছে বলে কক্সবাজারের রামুতে মো. কামাল নামে এক যুবক বিষপান করেছেন বলে দেশের প্রায় সব সংবাদমাধ্যমের খবরে দাবি করা হয়। প্রথম আলো, দ্য ডেইলি স্টার, সমকাল, মানবজমিন, যুগান্তর, বাংলাদেশ প্রতিদিন, সময় টিভির অনলাইন নিউজ পোর্টাল সময় নিউজসহ দেশের অনেকগুলো সংবাদমাধ্যমের অনলাইনে এমন দাবি সংবলিত প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়েছে। সেগুলো দেখতে আগের বাক্যে সংবাদমাধ্যমগুলোর নামে ক্লিক করুন।

অথচ রোববার বিকেলে দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাস ফ্যাক্টচেককে মো. কামাল বলেছেন, ব্যক্তিগত কারণে আত্মহত্যার চেষ্টা করেছিলেন তিনি। তিনি ব্রাজিল সমর্থনের কারণে বিষপান করেননি। এ ছাড়া যুগান্তরের ‘‘আর্জেন্টিনার কাছে হেরে’ ব্রাজিলভক্ত যুবকের বিষপান! (ভিডিও)’ শিরোনামে প্রকাশিত প্রতিবেদনে যুক্ত ভিডিওতে মো. কামালকে বলতে দেখা যায়, ‘আমি ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা বা খেলার ব্যাপারে আগ্রহ নেই। আমি অন্য ব্যাপারে, ব্যাক্তিগত ব্যাপারে আরকি আমি যা খেয়েছিলাম। এখন ছড়িয়ে পড়ছে যে আমি খেলার জন্য বিষপান করছি। না ওগুলা না। গুজব রটায়ছে আরকি। তো অন্যবিষয়ে রাগের মাথায় খেয়েছি আরকি। ইনশাআল্লাহ এখন সুস্থ আছি।’

প্রথম আলোর প্রতিবেদনে একই গ্রামের দুজনের বিষপানের কথা বলা হয়েছে। প্রতিবেদনে কক্সবাজার সদর হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) শাহীন মো. আবদুর রহমান চৌধুরী খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেন বলে জানানো হয়। চিকিৎসক বিষপানের বিষয়টি নিশ্চিত করতে পারেন এবং তাই তিনি করেছেন। ব্রাজিল সমর্থনের কারণে বিষপান, সেবিষয়টি তিনি নিশ্চিত করেননি। আর ভেতরে কারও নাম না উল্লেখ করে পারিবারিক ও পুলিশ সূত্রের বরাতে দাবি করা হয়, তারা দুজন ব্রাজিলের কট্টর সমর্থক ছিলেন।

দ্য ডেইলি স্টার, সমকাল ও মানবজমিনসহ বেশ কয়েকটি সংবাদমাধ্যমে স্থানীয়দের বরাতে মো. কামালের ব্রাজিল সমর্থনের কারণে আত্মহত্যাচেষ্টার কথা বলা হয়। দ্য ডেইলি স্টার অবশ্য যুবকের নাম কামাল উদ্দীন বলে উল্লেখ করেছে। অন্যদিকে প্রতিবেদনের প্রারম্ভিকা ও শিরোনামে আত্মহত্যাচেষ্টার নেপথ্যের কারণ হিসেবে ব্রাজিল সমর্থনকে উল্লেখ করা হলেও এই দাবি নাকচ করে যুবকের দেওয়া বক্তব্য প্রতিবেদনের শেষে যুক্ত করেছে যুগান্তর ও সমকাল।

তবে এনটিভি অনলাইনের ‘কক্সবাজারের রামুতে যুবকের বিষপান’ শিরোনামের প্রতিবেদনে যুবকের আত্মহত্যাচেষ্টার ঘটনাকে খেলাকেন্দ্রিক দাবি করা হয়নি। বাংলা ট্রিবিউন যুবকের বক্তব্য দিয়ে ‘‘ব্রাজিলের হারে বিষপান করিনি’’ শিরোনামে প্রতিবেদন প্রকাশ করে। এখানে ভুক্তভোগীর নিজের ভাষ্য তুলে ধরা হয়। এ ছাড়া বাংলাদেশ প্রতিদিনের প্রতিবেদনে প্রতিবেশীর বরাত দেওয়া হয়। এতে বলা হয়, ‘প্রতিবেশী কফিল উদ্দিন জানান, কামাল ব্রাজিলের কট্টর সমর্থক। আজ রবিবার সকালে কোপা আমেরিকার ফাইনাল খেলায় আর্জেন্টিনার কাছে এক গোলে হেরে যায় ব্রাজিল। এতে তিনি মানসিকভাবে ভেঙে পড়েন। একপর্যায়ে বিষপান করেন।’

দৈনিক ইত্তেফাকের মুছে দেওয়া প্রতিবেদনের ইউআরএল ও পেজ 

অন্যদিকে এ সংক্রান্ত প্রতিবেদন প্রকাশের পর নিউজ পোর্টাল থেকে তা মুছে দেয় দৈনিক ইত্তেফাক ও যমুনা টিভি। ‘ব্রাজিলের হারে রামুতে ভক্তের বিষপান’ শিরোনামে ইত্তেফাক এবং ‘কক্সবাজারে দুই ব্রাজিল ভক্তের বিষপান’ শিরোনামে যমুনা টিভি তাদের অনলাইনে প্রকাশিত প্রতিবেদন মুছে দেয়।

গুগল সার্চে পাওয়া যুগান্তরের প্রতিবেদনটির লিঙ্কে (বামে) ক্লিক করলে যমুনা টিভির অনলাইনের হোম পেজে যায়

ভুক্তভুগী নিজেই যখন বলছেন তিনি ব্রাজিল সমর্থন তো দূরের কথা খেলার ফলাফলের জন্য আত্মহত্যার চেষ্টা করেননি সেখানে স্থানীয় লোকজন বা পুলিশের সূত্র দিয়ে ভিন্ন বক্তব্য প্রতিষ্ঠিত করার যৌক্তিকতা নিয়ে প্রশ্ন রয়ে যায়। এ কারণে দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাস ফ্যাক্টচেক খবরটিকে ভুল খবর হিসেবে আখ্যায়িত করেছে।

উল্লেখ্য, শিক্ষা বিষয়ক অনলাইন নিউজ পোর্টাল দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাস এ সংক্রান্ত তাদের প্রতিবেদনটিতে তথ্যের অসঙ্গতি সংশোধন করে নেয়।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ

x