চলতি মাসে ১৭তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা নেয়ার দাবিতে মানববন্ধন

১৭তম শিক্ষক নিবন্ধন
মানববন্ধনে অংশ নেওয়া চাকরিপ্রার্থীরা  © টিডিসি ফটো

চলতি মাসের মধ্যে ১৭তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা নেওয়ার দাবিতে মানববন্ধন করেছেন পরীক্ষায় অংশগ্রহণের আবেদন করা প্রার্থীরা। মানববন্ধন শেষে বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষের (এনটিআরসিএ) চেয়ারম্যান বরাবর স্মারকলিপিও দিয়েছেন চাকরিপ্রার্থীরা। 

মঙ্গলবার (১৬ আগস্ট) সকালে রাজধানীর ইস্কাটন গার্ডেন রোডে এনটিআরসিএ’র কার্যালয়ের সামনে এই মানবন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়।

মানবন্ধনে জাবেদ মোশাররফ, মো. মোশাররফ হোসাইন, মো. জসিম উদ্দিন, ওভি খান, মাহবুব, রবিউল সানি, মেহেদী হাসান, আবুল কালামসহ বিভিন্ন জেলা থেকে আসা প্রায় অর্ধশতাধিক চাকরিপ্রার্থী অংশগ্রহণ করেন।

মানবন্ধনে অংশ নেওয়া চাকরিপ্রার্থীরা জানান, বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের প্রায় তিন বছর হতে চললেও এখনো ১৭তম শিক্ষক নিবন্ধনের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা আয়োজন করতে পারেনি এনটিআরসিএ। দীর্ঘদিন ধরে পরীক্ষার অপেক্ষায় থাকা চাকরিপ্রার্থীরা হতাশায় ভুগছেন। পরীক্ষা কবে সেটি কেউ জানে না। আমরা চরম অনিশ্চয়তার মধ্যে রয়েছি। আমাদের অনেকের বয়সই ৩৫ বছর অতিক্রম হয়ে গেছে। এছাড়া অনেকের বয়স ৩৫ বছরের কাছাকাছি।

আরও পড়ুন: শূন্যপদের তথ্য সংশোধন শুরু ১৯ আগস্ট

তাদের অভিযোগ, এনটিআরসিএ কেবল তাদের আশ্বাসই দিচ্ছেন। এর আগে তারা প্রায় সাত থেকে আটবার এনটিআরসিএতে স্মারকলিপি জমা দিয়েছেন। প্রতিবারই কর্মকর্তারা কেবল তাদের আশ্বাস দিয়েছেন। তবে কোনো বারই তাদের কথা রাখেননি। তাই আমরা আর কালক্ষেপন চাই না। চলতি আগস্ট মাসেই ১৭তম শিক্ষক নিবন্ধনের পরীক্ষা চাই।

মানববন্ধন শেষে চাকরি প্রার্থীরা এনটিআরসিএ’র চেয়ারম্যান এনামুল কাদের খান বরাবর স্মারকলিপি জমা দেন। এসময় তারা এনটিআরসিএ’র সচিব ওবায়দুর রহমানের সাথে সাক্ষাৎ করেন।

সাক্ষাৎকালে ওবায়দুর রহমান প্রার্থীদের দ্রুততম সময়ের মধ্যে ১৭তম শিক্ষক নিবন্ধনের পরীক্ষা আয়োজনের আশ্বাস দেন। আগামী নভেম্বর মাসে এই নিবন্ধনের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা আয়োজন করা হবে বলেও জানান তিনি।

এনটিআরসিএ’র চেয়ারম্যান বরাবর জমা দেওয়া স্মারকলিপিতে চাকরিপ্রার্থীরা জানান, ‘‘বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষ (এনটিআরসিএ ) সারা দেশের বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষক নিয়োগের লক্ষ্যে প্রতি বছর শিক্ষক/প্রভাষক পরীক্ষা গ্রহণ করে থাকে। ২০০৫ থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত এনটিআরসিএ প্রতি বছর ধারাবাহিকভাবে একটি করে নিবন্ধন পরীক্ষা নিয়ে আসছে।

তারই ধারাবাহিকতায় ২০২০ সালের ২২ জানুয়ারি ১৭তম শিক্ষক নিবন্ধনের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়। বিজ্ঞপ্তিতে ২০২০ সালের ১৬ মে প্রিলিমিনারি পরীক্ষা এবং ৭ ও ৮ আগস্ট লিখিত পরীক্ষা হওয়ার কথা থাকলেও মহামারী করোনার কারণে পরীক্ষা সাময়িক সময়ের জন্য স্থগিত করা হয়। করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ার সাথে সাথে গত তিন বছরে ৪১/৪২/৪৩/৪৪তম বিসিএস, ব্যাংক ও প্রাথমিক স্কুলের সহকারি শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষাসহ দেশে প্রায় শতাধিক নিয়োগ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। কিন্তু হয়নি ১৭তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা।’’

তারা আরও জানান, ‘‘১৭তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষার দাবিতে আমরা কয়েকবার চেয়ারম্যান স্যার বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করেছি। সর্বশেষ ঈদের কিছুদিন আগে আমরা একটি মানববন্ধন করেছিলাম। সেই মানববন্ধন শেষে এনটিআরসিএ’র কর্মকর্তারা ঈদের পর দ্রুত পরীক্ষা নেওয়া হবে বলে আমাদের কথা দিয়েছিলেন। এনটিআরসিএ’র নীতিমালায় চাকরি পাওয়ার সর্বোচ্চ বয়সসীমা ৩৫ বছর নির্ধারণ করা হয়েছে। বর্তমানে আমাদের প্রায় ৩০ শতাংশ পরীক্ষার্থীর বয়সসীমা ৩৫ অতিক্রম হয়ে গেছে। এই অবস্থায় সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনায় চলতি মাসে ১৭তম শিক্ষক নিবন্ধনের পরীক্ষা আয়োজনের দাবি জানাচ্ছি।


সর্বশেষ সংবাদ