স্থগিতাদেশ না পেলে গণবিজ্ঞপ্তির ফল নয়: এনটিআরসিএ

গণবিজ্ঞপ্তির ফল
এনটিআরসিএ  © ফাইল ফটো

১ থেকে ১২ তম নিবন্ধন পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের নিয়ে দেয়া রায়ের উপর স্থগিতাদেশ না পেলে বেসরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ৫৪ হাজার শিক্ষক নিয়োগে গণবিজ্ঞপ্তির ফল প্রকাশ করা হবে না। আগামীকাল রোববার (১৩ জুন) এ বিষয়ে আপিল করবে বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষ (এনটিআরসিএ)।

এনটিআরসিএ সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, সম্প্রতি হাইকোর্টের একটি বেঞ্চ ৪ সপ্তাহের মধ্যে  ১-১২তম রিটকারী নিবন্ধনধারীদের নিয়োগের আদেশ দেন। ওই রিটে এনটিআরসিএর বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগ আনা হয়। তবে আদালত অবমাননার অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে দাবি করেছেন এনটিআরসিএর কর্মকর্তারা।

তারা বলছেন, বেসরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শিক্ষক নিয়োগের জন্য ২০১৭ সালে আদালত একটি রায় দিয়েছিল। ওই রায়ের ২ এবং ৫ নম্বর পয়েন্ট অনুযায়ী নিবন্ধনধারীদের নিয়োগের আদেশ দেয়া হয়েছিল। ২ ও ৫ নম্বর পয়েন্টে মেধার ভিত্তিতে নিয়োগ দিতে বলা হয়েছে। সে অনুযায়ীই নিয়োগ দিয়ে আসছে এনটিআরসিএ। ফলে আদালত অবমাননার অভিযোগটি সঠিক নয়। সেজন্য ১-১২তমদের পক্ষে দেয়া রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। 

এনটিআরসিএর কর্মকর্তারা বলছেন, আগামী রোববার রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করা হবে। আপিলে আদালত আগের দেয়া রায়ের উপর স্থগিতাদেশ দিলে পরের দিনই গণবিজ্ঞপ্তির ফল প্রকাশ করা হবে। তবে আদালতের স্থগিতাদেশ না পাওয়া গেলে রেজাল্ট দেয়া সম্ভব হবে না।

আরও পড়ুন: রোববার আপিল, বুধবার হতে পারে গণবিজ্ঞপ্তির ফল

এ প্রসঙ্গে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এনটিআরসিএর এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাসকে বলেন, রোববার আমরা আপিল করবো। আপিলের শুনানি হবে আগামী মঙ্গলবার (১৫ জুন)। এদিন আদালতের স্থগিতাদেশ পেলে পরের দিন বুধবার গণবিজ্ঞপ্তির ফল প্রকাশ করা হবে।

তিনি আরও বলেন, আমরা আশা করছি আদালত স্থগিতাদেশ দেবে। কেননা আমরা আদালতের নির্দেশনা অনুযায়ী নিয়োগ সম্পন্ন করেছি। তবে আদালতের স্থগিতাদেশ না পেলে ৫৪ হাজার শিক্ষক নিয়োগে গণবিজ্ঞপ্তির ফল প্রকাশ করা সম্ভব হবে না। 


মন্তব্য