কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামিক ট্যালেন্টদের নিয়ে মেগা রিয়েলিটি শো

কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামিক ট্যালেন্টদের নিয়ে মেগা রিয়েলিটি শো
ইসলামিক মেগা রিয়েলিটি শো  © সংগৃহীত

রমজানের শুরু থেকেই বাংলাদেশে প্রথমবারের মতো আলেমেদ্বীন ও কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামিক ট্যালেন্টদের নিয়ে চলছে ইসলামিক মেগা রিয়েলিটি শো ‘বিএম এলপি গ্যাস ইসলামিক আইকন’। গার্ডিয়ান রিসার্চ ফাউণ্ডেশনের উদ্যোগে ২০২১ সালের পবিত্র মাহে রমজানের পুরো মাস জুড়ে প্রতিদিন বিকেল ৫টায় জিটিভিতে প্রচারিত হচ্ছে অনুষ্ঠানটি।

মিডিয়াব্যক্তিত্ব খালিদ সাইফুল্লাহ বকসীর উপস্থাপনায় ব্যতিক্রমধারার এ অনুষ্ঠানটিতে বিচারক হিসেবে আছেন মাওলানা কামালুদ্দীন আবদুল্লাহ জাফরী, প্রফেসর ড. গিয়াস উদ্দীন তালুকদার, ড. মোহাম্মদ মানজুরে ইলাহী, শায়খ আহমাদুল্লাহ, মুহিবুল্লাহিল বাকী নদভী, ড. নকীব মুহাম্মদ নাসরুল্লাহ, একিউএম শফিউল্লাহ আরিফ এবং প্রফেসর মোখতার আহমদসহ আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন ইসলামিক স্কলাররা।

টানটান উত্তেজনাময় এ প্রতিযোগিতায় সারাদেশের হাজার হাজার অংশগ্রহণকারীদের মধ্য থেকে ৪৮জন ট্যালেন্ট প্রতিযোগী এ অনুষ্ঠানে সুযোগ পেয়েছেন। কুরআন সুন্নাহর জ্ঞানে পারদর্শিতা প্রদর্শনের এই মহাযুদ্ধ শেষে নির্বাচিত হবেন সেরা ৩ জন ইসলামিক আইকন। ১ম, ২য় এবং ৩য়সহ সেরা ১০ জন বিজয়ীর জন্য থাকবে সর্বমোট ১৫ লাখ টাকার পুরস্কার। এ ছাড়া পাবেন বিদেশে উচ্চশিক্ষা ও ওমরাহ পালনের সুযোগ।

ইসলামী জ্ঞান চর্চার ব্যতিক্রমধারার এমন অনুষ্ঠান আয়োজনের লক্ষ্য, উদ্দেশ্য ও স্বপ্ন নিয়ে জানতে চাইলে ইসলামিক আইকনের পরিচালক খালিদ সাইফুল্লাহ বকসী বলেন, প্রতিদিন বদলাচ্ছে পৃথিবী। বদলাচ্ছে মানুষের চাহিদা ও রুচি। ইসলামের শ্বাশত সুন্দর বাণী প্রচারক হবেন যারা; তাদেরও মান উন্নত হতে হবে যুগ চাহিদার ভাষা বুঝেই। আধুনিক চিন্তা ও প্রযুক্তিমনোস্ক আগামী দিনের স্মার্ট ইসলামিক স্কলার তৈরির উদ্দেশ্যেই ইসলামিক আইকনের পথচলার সূচনা। ইসলামিক আইকন থেকে যিনি বা যারা সেরা হিসেবে নির্বাচিত হবেন; তারাই হবেন আগামী পৃথিবীর ইসলামিক স্কলার।

তিনি বলেন, একটি ইসলামিক রিয়েলিটি শোতে আমরা যেসব গবেষণালব্ধ বিষয় ও অনুষঙ্গ যুক্ত করেছি; তা শুধু বাংলাদেশের মিডিয়ায় নয় বরং আমার জানা মতে পৃথিবীর অন্য কোনো দেশেও নেই।


মন্তব্য