শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে সমস্যা হলে জানানোর নির্দেশ মাউশির

মাউশি
শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে সমস্যা হলে জানানোর নির্দেশ মাউশির

দীর্ঘ ১৭ মাস থাকার পর রোববার থেকে খুলে দেওয়া হয়েছে দেশের সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়া হলেও শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ সংশ্লিষ্ট সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মানতে কঠোর নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। এরপরই যদি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে কোনো ধরনের সমস্যার সৃষ্টি হয় তা জানতে নির্দেশনা দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর (মাউশি)। রোববার মাউশির মহাপরিচালক স্বাক্ষরিত এক নির্দেশনার এ তথ্য জানানো হয়েছে।

নির্দেশনা জানানো হয়েছে, করোনা পরিস্থিতিতে দেশের সকল মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রায় দেড় বছর বন্ধ থাকার পর স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে পুনরায় চালুর সিদ্ধান্ত হয়েছে। অতিমারির সংক্রমণ কমে আসলেও তা সম্পূর্ণ নির্মূল হয়নি। এ অবস্থায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার পর শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কোভিড-১৯ এর কারণে কোনো প্রকার সমস্যার উদ্ভব হলে বিষয়টি দৈনিক ভিত্তিতে জানা এবং তাৎক্ষণিকভাবে সমস্যা সমাধানের উদ্যোগ নেওয়ার লক্ষ্যে একটি মনিটরিং ছক প্রণয়ন করা হয়েছে।

মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের আওতাধীন সকল আঞ্চলিক পরিচালক, আঞ্চলিক উপ-পরিচালক (মাধ্যমিক) ও জেলা শিক্ষা কর্মকর্তাগণকে তার আওতাধীন সকল স্কুল ও কলেজ (সরকারি-বেসরকারি) প্রতিদিন মনিটরিং করে বিকাল ৪টার মধ্যে ছক অনুযায়ী তথ্য মনিটরিং অ্যান্ড ইভ্যালুয়েশান উইং এর ই-মেইল [email protected] এ পাঠানোর জন্য নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

আঞ্চলিক পরিচালকগণ তার আওতাধীন সকল সরকারি ও বেসরকারি কলেজ এবং আঞ্চলিক উপ-পরিচালক (মাধ্যমিক) ও জেলা শিক্ষা কর্মকর্তাগণ তার আওতাধীন মাধ্যমিক পর্যায়ের সকল সরকারি ও বেসরকারি স্কুলের তথ্য পাঠাবেন।