কলেজ ছাত্রীনিবাস শিক্ষকের দখলে, ছাড়তে আল্টিমেটাম ছাত্রলীগের

ছাত্রলীগের বিক্ষোভ
শরণখোলা সরকারি কলেজে ছাত্রলীগের বিক্ষোভ  © সংগৃহীত

বাগেরহাটের শরণখোলা সরকারি কলেজের ছাত্রীনিবাস এক শিক্ষক দখল করে রেখেছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। শেখ রাজিয়া নাসের নামে ছাত্রীনিবাসটি দখলে থাকায় আবাসিক ছাত্রীরা নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন বল দাবি করা হয়েছে। কর্তৃপক্ষ ছাত্রীনিবাস ছাড়তে একাধিকবার নোটিশ দিলেও কর্ণপাত করেননি ওই শিক্ষক। এ অবস্থায় শিক্ষককে ছাত্রীনিবাস ছাড়তে তিনদিনের আলটিমেটাম দিয়েছে উপজেলা ও কলেজ ছাত্রলীগ।

শুক্রবার (২০ আগস্ট) উপজেলা ও কলেজ ছাত্রলীগ বিক্ষোভ করে এ আল্টিমেটাম দেন। অন্যথায় আজ শনিবার থেকে কলেজে অনির্দিষ্টকালের ছাত্র ধর্মঘট শুরু হবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আসাদ হাওলাদার ও সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম সাব্বির। 

কলেজের অধ্যক্ষ মো. নুরুল আলম ফকির জানান, ছাত্রীদের আবাসিক সংকট নিরাসনে ২০১৭ সালে শিক্ষক পরিষদের সভায় শিক্ষকদের কয়েকটি কোয়ার্টার শেখ রাজিয়া নাসের নামকরণ করে ছাত্রীনিবাস করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। এরপর পর্যায়ক্রমে অন্য শিক্ষকরা কোয়াটার ছেড়ে দিয়েছেন। তবে ইতিহাস বিভাগের শিক্ষক সাব্বির আহম্মদ মুক্তা বাসা ছাড়ছেন না।

আরো পড়ুন: ‘ভাইয়ের সঙ্গে হ্যান্ডশেকের সময় বামহাত পেছনে রাখতে হবে’—হল ছাত্রলীগের ১৪ নির্দেশনা

তিনি আরও বলেন, তাকে দুইবার লিখিত নোটিশ দেওয়া হয়েছে। এরপরও ছাত্রীনিবাসে বসবাস করছেন সাব্বির আহম্মদ মুক্ত। ইউএনও চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়েছেন। যে কারণে ছাত্রীরা বিব্রত ও নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে।

এ ব্যাপারে আবাসিক ছাত্রী ফারজানা আক্তার, শান্তা আক্তার, তমা রানী জানান, তাদের মধ্যে পুরুষ শিক্ষক থাকায় স্বাভাবিকভাবে চলাফেরা করতে পারছেন না। প্রায়ই বিব্রতকর অবস্থায় পড়তে হয়। নিরাপত্তা নিয়েও সংশয় রয়েছে তাদের।

এ বিষয়েসাব্বির আহম্মেদ মুক্তা বলেন, কলেজ কোয়াটারে থাকা অবস্থায়ই সেটিকে ছাত্রীনিবাস করা হয়েছে। নিজের বাড়ির কাজ শেষ করে বাসা ছাড়তে বিলম্ব হচ্ছে। দুই সপ্তাহের মধ্যে ছাত্রীনিবাস ছেড়ে দেবেন।


x

সর্বশেষ সংবাদ