শিক্ষকের গলায় জুতার মালা, প্রতিবাদে আন্দোলনের ডাক

জুতা
শিক্ষকের গলায় জুতার মালা  © সংগৃহীত

নড়াইলে এক কলেজ অধ্যক্ষকে পুলিশের সামনে গলায় জুতার মালা পরানোর ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন তার সহকর্মীসহ অন্য শিক্ষকরা। এই ঘটনায় রাজধানীর শাহবাগে প্রতিবাদ সমাবেশের ডাক দেওয়া হয়েছে।

জানা গেছে, বিতর্কিত মন্তব্যের জন্য সমালোচনায় থাকা ভারতের বিজেপি নেত্রী নূপুর শর্মার ছবি দিয়ে ফেসবুকে নড়াইল কলেজের এক ছাত্র পোস্ট করেন।   পোস্ট দেওয়ার পরদিন কলেজে গেলে কিছু ছাত্র তাকে সেটি মুছে ফেলতে বলেন।

ওই সময় ‘অধ্যক্ষ ওই ছাত্রের পক্ষ নিয়েছেন’ এমন কথা রটানো হলে উত্তেজনা তৈরি হয়। অধ্যক্ষ ও দুজন শিক্ষকের মোটরসাইকেল পুড়িয়ে দেওয়া হয়। পুলিশ গেলে স্থানীয়দের সঙ্গে তাদেরও সংঘর্ষ বাঁধে।

ওই সময় ধর্ম অবমাননার অভিযোগ তুলে কলেজের ছাত্র ও স্থানীয়রা ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের গলায় জুতার মালা পরিয়ে দেন।  ওই ঘটনার কিছু ছবি ও ভিডিও ফেসবুকে আসে, যাতে পুলিশের উপস্থিতিও দেখা যায়। এ ঘটনায় পরে পুলিশ ফেসবুকে পোস্ট দেওয়া ওই যুবককে গ্রেফতার করে।

আরও পড়ুন: স্থগিত এসএসসি পরীক্ষা কখন নেয়া হবে, জানালেন শিক্ষামন্ত্রী

পুলিশের সামনে একজন শিক্ষকের গলায় জুতার মালা পরানোর প্রতিবাদে আগামী সোমবার (২৭ জুন) বিকেলে ঢাকার শাহবাগে একটি প্রতিবাদ সমাবেশ ডাকা হয়েছে।

সমাবেশের সংগঠক রবীন আহসান বলেন, শিক্ষক নির্যাতনের ঘটনায় সমাবেশ আহ্বান করা হয়েছে। ওই ঘটনায় শিক্ষকের কোনো ভূমিকাই নেই। উনাকে না বাঁচিয়ে পুলিশ তাকে বের করেছে। প্রশাসন যারা চালায় তারা কী চাইছে?
 
এ প্রসঙ্গে নড়াইল সদর থানার ওসি মোহাম্মদ শওকত কবীর বলেন, কলেজ অধ্যক্ষ কোনো ধর্ম অবমাননা করেননি। তাকে ধরে নিয়ে যাওয়ার কথাও ঠিক নয়। সেদিন তাকে নিরাপদে বের করা হয়েছিল। যেহেতু তিনি অপরাধ করেননি, তার বিরুদ্ধে মামলা করারও বিষয় নেই।

পুলিশের সামনে জুতার মালা পরানোর ঘটনা অস্বীকার করে তিনি বলেন, জুতার মালা পরানোর কোনো ঘটনা আমি দেখিনি। সেরকম কিছু আমার জানা নেই।


x