এসিডদগ্ধ অসহায় শিক্ষার্থীর পাশে তোফায়েল আহমেদ

তোফায়েল আহমেদ
এসিডদগ্ধ অসহায় শিক্ষার্থীর পাশে তোফায়েল আহমেদ  © সংগৃহীত

হবিগঞ্জের এসিডদগ্ধ অসহায় শিক্ষার্থী সীমার পাশে দাঁড়িয়েছেন বরেণ্য রাজনীতিবিদ ও আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য তোফায়েল আহমেদ। ইতিমধ্যে সীমার হাতে এক লাখ টাকা তুলে দিয়েছেন তিনি।

জানা যায়, ছোট বয়সেই বাবার ছোড়া এসিডে দগ্ধ হন সীমা। এতে তার মুখমণ্ডল বিকৃত হয়ে যায়। ২০১০ সালে সীমাকে কোনো প্রতিষ্ঠান ভর্তি নিতে রাজি হয়নি। একটি বেসরকারি টেলিভিশন তাকে নিয়ে প্রতিবেদন সম্প্রচার করে। এরপর অনেকের আর্থিক সহায়তায় সীমার পড়াশোনা শুরু হয়। তবে মহামারি করোনার প্রকোপে তার পড়াশোনা আবারও হুমকির মুখে পড়ে। এবারও সীমার বিষয়টি নিয়ে ওই বেসরকারি টেলিভিশন একটি প্রতিবেদন করে। এবার সীমার আর্থিক অসংগতি ও অসহায়ত্বের বিষয়টি নজরে আসে বরেণ্য রাজনীতিবিদ ও সংসদ সদস্য তোফায়েল আহমেদের। এরপর তিনি তার প্রতিষ্ঠিত তোফায়েল আহমেদ ফাউন্ডেশনের মাধ্যমে সীমাকে সহায়তা করার সিদ্ধান্ত নেন।

সেই মোতাবেক সীমাসহ তার পরিবারকে রাজধানী ঢাকায় অবস্থিত নিজ বাসভবনে ডেকে পাঠান তোফায়েল আহমেদ। তারপর সীমার হাতে এক লাখ টাকা তুলে দেন। পাশাপাশি তোফায়েল আহমেদ জানান, প্রতি মাসে তার প্রতিষ্ঠিত ফাউন্ডেশন থেকে সীমাকে পাঁচ হাজার টাকা প্রদান করা হবে। যাতে সীমার পড়ালেখার খরচ চালিয়ে যেতে কোনো সমস্যায় পড়তে না হয়।

তিনি আরো জানান, উচ্চশিক্ষা বা সীমা যে পর্যন্ত লেখাপড়া করতে চান সেই পর্যন্ত সীমাকে আর্থিক সহায়তা করা হবে। আর্থিক সহায়তা পাওয়ার পর সীমা বলেন, তিনি ভবিষ্যতে চিকিৎসক হতে চান। যাতে সহজেই সাধারণ মানুষের পাশে দাঁড়াতে পারেন।


মন্তব্য

এ বিভাগের আরো সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ