ধর্মশিক্ষা বাদ দেওয়ার সুযোগ নেই: শিক্ষামন্ত্রী

ধর্মশিক্ষা
শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি  © ফাইল ছবি

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেছেন, পাঠ্যপুস্তক থেকে ধর্শশিক্ষা বাদ দেওয়ার কোনো সুযোগ নেই। ধর্মশিক্ষা সবসময় ছিল, এখনও আছে। না থাকার কোনো কারণও দেখি না। 

বুধবার (৬ জুলাই) শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির ঘোষণা নিয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান তিনি।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ধর্মশিক্ষা বাদ দেওয়া হয়েছে বলে ব্যাপকভাবে প্রচারণা করা হচ্ছিল। তবে এর কোনো সত্যতা নেই। এটি সম্পূর্ণ মিথ্যা। ধর্মশিক্ষা ছিল, আছে এবং থাকবে। এটি বাদ দেওয়ার কোনো কারণ নেই।

আরও পড়ুন: এসএসসি পরীক্ষা নিয়ে সিদ্ধান্ত হয়নি: শিক্ষামন্ত্রী

তিনি বলেন, ধর্মের যে মূল কথা, তা যেন শিক্ষার্থীরা অনুধাবন করতে পারে, নিজের জীবনে চর্চা করতে পারে, নতুন কারিকুলামে সেইভাবে ধর্মশিক্ষার বইগুলো তৈরি করা হয়েছে। কাজেই আজ যারা ধর্মশিক্ষা তুলে দেওয়া হয়েছে বলছেন, তাদের উদ্দেশ্য ধর্মকে রক্ষা করা নয়, ধর্মের পক্ষে থাকা নয়। তাদের উদ্দেশ্য ধর্মকে অজুহাত হিসেবে ব্যবহার করে দেশকে অস্থিতিশীল করা।

তাদের উদ্দেশ্য, দেশের ধর্মভীরু সাধারণ মানুষকে অন্যায়ভাবে উসকে দিয়ে সরকারের বিরুদ্ধে একটা পরিবেশ সৃষ্টি করা এবং আগামী নির্বাচনকে সামনে রেখে দেশকে অস্থিতিশীল করা জানিয়ে তিনি দেশের সাধারণ মানুষকে আহ্বান জানান, যারা ধর্মের নামে অপপ্রচার চালায়, মিথ্যাচার করে, তাদের সমস্ত অপপ্রচার আপনারা উপেক্ষা করুন।


x