ফের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বন্ধ বাড়তে পারে বলে ভুয়া খবর ফেসবুকে

ফেসবুক
ফেসবুক পোস্ট  © স্ক্রিনশট

বাংলাদেশ শিক্ষাবার্তা’’ নামের একটি ফেসবুক পেজে পোস্ট করে বলা হয়, আবারও দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের মেয়াদ বাড়তে পারে। অথচ শিক্ষামন্ত্রী ডা. দিপু মনি গত রোববার নিশ্চিত করে জানিয়েছেন, আগামী ১২ সেপ্টেম্বর থেকে প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান চালু হবে।

আজ মঙ্গলবার বেলা আড়াইটার দিকে বাংলাদেশ শিক্ষাবার্তা পেজের পোস্টে বলা হয়, ‘আবারও বন্ধ বাড়তে পারে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। ১২ সেপ্টেম্বর শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার সম্ভবনা নেই। সূত্রঃ সময় টিভি।’ এই পোস্টের পরপরই ফেসবুকে বিভিন্নজনের একাউন্ট, পেজ ও গ্রুপে একইদাবিতে পোস্ট দিতে দেখা যায়। বেশকিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে

তবে বাংলাদেশ শিক্ষাবার্তা পেজটিতে মঙ্গলবার সন্ধ্যার পর একটি পোস্ট দিয়ে বলা হয়, ‘১২ সেপ্টেম্বর শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার সম্ভাবনা নেই বলে যে তথ্য ছড়িয়েছে তা মিথ্যা-গুজব।’

বেশকিছু ফেসবুক পোস্টের স্ক্রিনশট

সময় টিভির অনলাইনে মঙ্গলবার রাত পৌনে ১১টার দিকে ‘সময় টিভির নামে গুজব’ শিরোনামে একটি প্রতিবেদন করা হয়। তাতে বলা হয়, সময় টিভির কোথাও এমন সংবাদ প্রকাশ করা হয়নি।

সময় টিভির অনলাইনের প্রতিবেদনের স্ক্রিনশট

গত রোববার (৫ সেপ্টেম্বর) দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাসে ১২ সেপ্টেম্বরই খুলছে স্কুল-কলেজ: শিক্ষামন্ত্রী  শিরোনামে খবর প্রকাশিত হয়। তা থেকে জানা যায়, সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সম্মেলন কক্ষে আন্তঃমন্ত্রণালয়ের বৈঠক শেষে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দিপু মনি বলেন, ‘আগামী ১২ সেপ্টেম্বর থেকে দেশের স্কুল-কলেজ খুলে দেওয়া হবে। এবার আমরা দেখছি সংক্রমণের হার দ্রুত কমছে। অভিজ্ঞতা বলছে নভেম্বর ও ডিসেম্বরে সংক্রমণের হার কম থাকে। আর টিকা কার্যক্রম যে গতিতে চলছে সে বিবেচনায় প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ১২ সেপ্টেম্বর থেকে শ্রেণিকক্ষে পাঠদান শুরু করব।’

দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাসের প্রতিবেদনের স্ক্রিনশট

মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ