সব মোবাইল ফোনের জন্য হবে একই চার্জার

ইউএসবি-সি চার্জার
  © সংগৃহীত

সব ধরনের স্মার্টফোন এবং ছোট আকারের ইলেকট্রনিক যন্ত্রের ব্যাটারি চার্জ দেয়ার জন্য প্রযুক্তির প্রতিষ্ঠানগুলোকে একই ধরনের চার্জার বানানোর প্রস্তাব দিয়ে একটি নতুন নিয়ম তৈরি করতে যাচ্ছে ইউরোপিয়ান কমিশন। নতুন নিয়ম অনুসারে, ইউরোপিয়ান ইউনিয়নে বিক্রি হওয়া সব স্মার্টফোনে ইউএসবি-সি চার্জার থাকতে হবে।

প্রস্তাবিত নিয়ম অনুযায়ী, স্মার্টফোন, ট্যাবলেট, ক্যামেরা, হেডফোন, পোর্টেবল স্পিকার ও হাতে ধরা ব্যবহার করার ভিডিও গেম কনসোলের জন্য একই ধরনের চার্জার থাকতে হবে। তবে ইয়ারবাড, স্মার্ট ওয়াচ এবং ফিটনেস ট্র্যাকারকে এই তালিকায় রাখা হয়নি।

ইউরোপিয়ান কমিশন বলছে, তাদের এই পদক্ষেপ নেয়ার পেছনে মূল লক্ষ্য হলো বর্জ্য কমানো। এরকম নিয়ম তৈরি হলে নতুন যন্ত্র কিনলেও গ্রাহকরা তখন পুরানো চার্জার ব্যবহার অব্যাহত রাখতে পারবেন বলে বিশ্বাস তাদের।

তবে এ নিয়ম কার্যকর হলে তা প্রযুক্তিক্ষেত্রে উদ্ভাবনী বিষয়কে ক্ষতিগ্রস্ত করবে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছে প্রযুক্তি জায়ান্ট অ্যাপল। প্রতিষ্ঠানটি তাদের বানানো স্মার্টফোনের জন্য আলাদা চার্জিং পোর্ট ব্যবহার করে।

বর্তমানে অধিকাংশ এন্ড্রয়েড ফোনের সাথে একটি ইউএসবি মাইক্রো-বি চার্জিং পোর্ট থাকে। অনেক অ্যান্ড্রয়েড ফোনে বর্তমানে ইউএসবি-সি চার্জিং পোর্টও থাকে। এছাড়া আইপ্যাড ও ম্যাকবুকের নতুন মডেলে ইউএসবি-সি চার্জিং পোর্ট দেখা যায়।

নতুন ওই প্রস্তাবে চার্জিং স্পিডের বিষয়টিও উল্লেখ করেছে ইউরোপিয়ান কমিশন। তারা বলছে, ফাস্ট চার্জ হতে পারে এমন সব ডিভাইসে একই সময়ের মধ্যে চার্জ হতে হবে।


মন্তব্য