গুচ্ছ পরীক্ষায় জালিয়াতি

দীন ইসলামের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থার প্রক্রিয়া চলছে

বশেমুরবিপ্রবি কেন্দ্রে গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষায় জালিয়াতির অভিযোগে দীন ইসলাম নামে এক ভর্তিচ্ছুকে আটক করা হয়েছে
বশেমুরবিপ্রবি কেন্দ্রে গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষায় জালিয়াতির অভিযোগে দীন ইসলাম নামে এক ভর্তিচ্ছুকে আটক করা হয়েছে  © টিডিসি ফটো

২০২০-২১ শিক্ষার্বষের গুচ্ছ পদ্ধতির ভর্তি পরীক্ষায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে দীন ইসলাম নামে ভর্তিচ্ছুকে আটক করা হয়েছে। ভর্তি পরীক্ষায় জালিয়াতি চেষ্টার অভিযোগে তাকে আটক করা হয়। আটকের পর ইতিমধ্যে তার পরীক্ষা বাতিল করা হয়েছে।

বশেমুরবিপ্রবি প্রক্টর ড. রাজিউর রহমান বলেন, ভর্তি পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে ভর্তিচ্ছুদের সব ধরনের ইলেকট্রনিক ডিভাইস ব্যবহার নিষিদ্ধ করা হয়েছে। কিন্তু এই শিক্ষার্থী ব্লুটুথ ব্যবহার করছিলেন। এ কারণে তাকে আটক করা হয়। ইতিমধ্যে তার পরীক্ষা বাতিল করা হয়। এছাড়া তার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণেরও প্রক্রিয়া চলছে।

এর আগে, এদিন দুপুর ১২টায় ‘ক’ ইউনিটের পরীক্ষায় মধ্য দিয়ে দেশের ২০টি সাধারণ ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে গুচ্ছভিত্তিক সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা শুরু হয়েছে। পরে পরীক্ষা চলাকালে বশেমুরবিপ্রবি একাডেমিক ভবনের ৫১২নং কক্ষ থেকে অভিযুক্তকে আটক করা হয়।

হল পরিদর্শক ও বিশ্ববিদ্যালয়ের একাউন্টিং এন্ড ইনফরমেশন বিভাগের সহকারি অধ্যাপক মোহাম্মদ সোলাইমান হোসেন বলেন, পরীক্ষা শুরু হওয়ার পূর্বে সকলকে ইলেকট্রনিক ডিভাইস জমা দিতে বলা হয়েছিল। কিন্তু এ শিক্ষার্থী জালিয়াতির উদ্দেশ্যে তার সঙ্গে এ ডিভাইসটি রেখে দিয়েছেন।

তিনি বলেন, পরীক্ষা শুরু হওয়ার কিছু সময় পর ওই শিক্ষার্থীর আচরণ সন্দেহজনক হওয়ায় তাকে চ্যাক করা হয়। তাকে চ্যাক করার পর তার কাছ থেকে ইলেকট্রনিক ডিভাইস উদ্ধার করা হয়েছে। এসময় ওই শিক্ষার্থী এ বিষয়ে কোন সদুত্তর দিতে না পারায় তার পরীক্ষা বাতিল করা হয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রদত্ত তথ্য অনুযায়ী, বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রে ‘ক’ বিভাগের পরীক্ষায় ৬ হাজার ৯১২ জন পরীক্ষার্থী মধ্যে ৫ হাজার ৮৯২ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করেন। শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিক্যাল টিম এবং বিশ্ববিদ্যালয় অনুষদ ভবনগুলোর সামনে হাত ধোয়ার ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবস্থা করা হয়।


মন্তব্য

x