২০২২ সালের এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষাও সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে

২০২২ সালের এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষাও সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে
  © প্রতীকি ছবি

২০২২ সালের এসএসসি ও এইচএসসি এবং সমমানের পরীক্ষার্থীদের নির্ধারিত সিলেবাস ৩০ শতাংশ কমিয়ে পরীক্ষা নেওয়া হবে। চলতি সপ্তাহে দুই পরীক্ষার সংক্ষিপ্ত সিলেবাস শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে জমা দেওয়া হবে। সংশ্লিষ্ট সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ড (এনসিটিবি) এর কর্মকর্তারা জানান, চলতি শিক্ষাবর্ষের তিন মাস বা তার বেশি সময় ক্লাস হবে না ধরেই চলতি শিক্ষাবর্ষের সিলেবাস ছোট করা হয়েছে। যদি এপ্রিলে স্কুল খুলে দেওয়া হতো সে ভাবনা থেকে সংক্ষিপ্ত সিলেবাস প্রণয়ন করা হয়েছে। ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণির সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে কোনো তারিখ রাখা হয়নি। শিক্ষাবর্ষের মাসভিত্তিক কত কর্মদিবস ক্লাস করা সম্ভব হবে সেভাবে সংক্ষিপ্ত সিলেবাস প্রণয়ন করা হয়েছে। ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত সংক্ষিপ্ত সিলেবাস ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহে মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হয়েছে। বিষয়ভিত্তিক সংক্ষিপ্ত সিলেবাস প্রণয়ন করা হয়েছে।

উদাহরণ দিয়ে কর্মকর্তারা বলেন, যেমন সপ্তাহে বাংলার ক্লাস থাকে পাঁচ দিন। আবার গণিতের ক্লাস থাকে তিন দিন। সবমিলিয়ে ১৫০ কর্মদিবসের সিলেবাস তৈরি করা হয়েছে।

এনসিটিবি সূত্রে জানা যায়, বর্তমানে যারা নবম শ্রেণিতে অধ্যয়নরত তারা ২০২২ সালে এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিবে। তাদের জন্যও সংক্ষিপ্ত সিলেবাস তৈরির কাজ করছেন এনসিটিবির কর্মকর্তারা। ২০২২ সালের এসএসসি পরীক্ষার্থীর জন্য ৩০ শতাংশ সিলেবাস কমানো হবে।

একইভাবে যারা ২০২২ সালে এইচএসসি পরীক্ষা দিবে তাদেরও সিলেবাস সংক্ষিপ্ত করার কাজ চলছে। আগামী বুধবারের মধ্যে দুই পরীক্ষার সংক্ষিপ্ত সিলেবাস প্রণয়ন করে মন্ত্রণালয়ের অনুমোদনের জন্য পাঠানোর কথা রয়েছে।

এ ব্যাপারে এনসিটিবির চেয়ারম্যান গণমাধ্যমকে বলেন, করোনার কারণে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় পাঠদান ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ক্ষতি কাটিয়ে উঠতে ২০২২ সালের এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষার সিলেবাস সংক্ষিপ্ত করার কাজ চলছে। চলতি শিক্ষাবর্ষের তিন মাস ক্লাস না হওয়ায় ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণির সিলেবাসও সংক্ষিপ্ত করে মন্ত্রণালয়ের অনুমোদনের জন্য পাঠানো হয়েছে।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ